Opu Hasnat

আজ ১৪ জুলাই রবিবার ২০২৪,

শিরিন শিলাকে সঙ্গে নিয়ে আবারও নতুন চলচ্চিত্রে কায়েস আরজু বিনোদন

শিরিন শিলাকে সঙ্গে নিয়ে আবারও নতুন চলচ্চিত্রে কায়েস আরজু

ফয়সাল হাবিব সানি : প্রয়াত হাসিবুল ইসলাম মিজান পরিচালিত ২০০৭ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত ‘তুমি আছো হৃদয়ে’ চলচ্চিত্রের মধ্য দিয়ে ঢাকাই চলচ্চিত্রের রূপালি পর্দায় নাম লেখান চিত্রনায়ক কায়েস আরজু। অভিনীত ও মুক্তিপ্রাপ্ত প্রথম চলচ্চিত্রটিই খ্যাতি ও জনপ্রিয়তা এনে দেন এই চিত্রনায়ককে। সম্প্রতি তিনি চুক্তিবদ্ধ হলেন নতুন আরও এক চলচ্চিত্রে। চলচ্চিত্রটির নাম ‘গবেট’। 

দেবাশীষ সরকার পরিচালিত ও বেঙ্গল আই মাল্টিমিডিয়ার ব্যানারে নির্মিতব্য পূর্ণদৈর্ঘ্য এই চলচ্চিত্রটিতে নাম ভূমিকায় অভিনয়ের জন্য সোমবার (৮ জুলাই) চুক্তিবদ্ধ হয়েছেন এই চিত্রনায়ক। চলচ্চিত্রটির প্রযোজক বেঙ্গল আই মাল্টিমিডিয়ার সত্ত্বাধিকারী এ কে এম গোলাম ছারওয়ার। চলচ্চিত্রটির কাহিনি, সংলাপ ও চিত্রনাট্য রচনা করেছেন পরিচালক দেবাশীষ সরকার নিজেই। 

অন্যদিকে, চলচ্চিত্রটিতে চুক্তিবদ্ধ হবার বিষয়টি নিশ্চিত করে গণমাধ্যমকে জানিয়েছেন কায়েস আরজু। চলচ্চিত্রটিতে তার সঙ্গে জুটি গড়েছেন গ্ল্যামারাস চিত্রনায়িকা শিরিন শিলা। শিরিন শিলা-কায়েস আরজু এর পূর্বেও চলচ্চিত্রে জুটিবদ্ধ হয়ে কাজ করেছেন। এদিকে, ঢাকা, গাজীপুর ও কক্সবাজারের বিভিন্ন নয়নাভিরাম লোকেশনে সিনেমাটির দৃশ্য চিত্রায়ন করা হবে। আগস্টের প্রথম সপ্তাহেই সিনেমাটির ক্যামেরা ওপন করা হবে বলে জানা যায়।

চলচ্চিত্রটিতে কায়েস আরজু-শিরিন শিলা ছাড়াও আরও অভিনয় করছেন আবুল হায়াত, দিলারা জামান, সমু চৌধুরী, নাদের চৌধুরী, বড়দা মিঠু, আহমেদ শরীফ প্রমুখ। চলচ্চিত্রটির বিভিন্ন গানে কণ্ঠ দিয়েছেন জনপ্রিয় সংগীতশিল্পীরা। এদিকে, সদ্য মুক্তিপ্রাপ্ত কায়েস আরজু অভিনীত ‘রুখে দাঁড়াও’ চলচ্চিত্রের পরিচালক দেবাশীষ সরকারের সঙ্গে আবারও কাজ করতে পেরে দারুণভাবে উচ্ছ্বসিত ও আনন্দিত ‘তুমি আছো হৃদয়ে’ খ্যাত সুদর্শন এই চিত্রনায়ক। 

চলচ্চিত্রটি (গবেট) প্রসঙ্গে বলতে গিয়ে কায়েস আরজু বলেন, ‘মূলত এই চলচ্চিত্রটি এমন একটি চলচ্চিত্র যা সিনেমা পাগল দর্শকদের হৃদয়ে অনেকদিন ধরে দাগ কেটে রাখবে। চলচ্চিত্রটিতে আমি আমার মনের মতো চরিত্র পেয়েছি। আর আমার কো-আর্টিস্ট হিসেবে শিরিন শিলাও দারুণ অভিনেত্রী এবং সে সর্বোচ্চটুকু দিয়েই সর্বদা তার চরিত্রটিকে স্বতঃস্ফূর্তরূপে ফুটিয়ে তুলতে চেষ্টা করে। অন্যদিকে, আমারও খুব ভালো লাগছে এমন একটি চরিত্র পেয়ে। আমি আশাবাদ ব্যক্ত করি, দর্শকদের আবারও ভিন্ন কিছু উপহার দিতে পারব। আমি সবসময়-ই ভিন্ন ভিন্ন চরিত্রে নিজেকে উপস্থাপন করতে চাই এবং চরিত্রের প্রয়োজনে নিজেকে বারবার নতুন আঙ্গিকে ভাঙতে-গড়তে ভালোবাসি।’ 

প্রসঙ্গত, মুক্তির প্রহর গুণছে কায়েস আরজু অভিনীত ‘মুক্তি’, ‘আগুনে পোড়া কান্না’, ‘অপুর বসন্ত’ সহ অনেকগুলো চলচ্চিত্র। সবকটি চলচ্চিত্রেই নিজেকে নবাঙ্গিকে ভিন্ন ভিন্ন চরিত্রে পুঙ্খানুপুঙ্খভাবে মেলে ধরেছেন এই চিত্রনায়ক।