Opu Hasnat

আজ ৩০ নভেম্বর বুধবার ২০২২,

শ্রীলংকাকে ৪ উইকেটে হারিয়ে সেমিতে ইংল্যান্ড খেলাধুলা

শ্রীলংকাকে ৪ উইকেটে হারিয়ে সেমিতে ইংল্যান্ড

টি-২০ বিশ্বকাপে নিজেদের শেষ ম্যাচে শ্রীলংকাকে ৪ উইকেটে হারিয়ে সেমিফাইনাল নিশ্চিত করেছে ইংল্যান্ড। আজ জিতলেই ফাইনাল এমন সমীকরণ নিয়ে খেলতে নেমেছিলো ইংলিশরা। আর তাদের এই জয়ে সেমিফানালের আগেই বিদায় নিতে হলো অস্ট্রেলিয়াকে।

শনিবার সিডনি ক্রিকেট গ্রাউন্ডে টস জিতে প্রথমে ব্যাট করে শ্রীলংকা। আগে ব্যাট করে চ্যালেঞ্জিং স্কোর গড়তে পারেনি লংকানরা। পাথুম নিশানকার ৪৫ বলের ৬৭ রানের ইনিংসে ভর করে ৮ উইকেট হারিয়ে ১৪১ রান তুলতে সক্ষম হয় সম্প্রতি এশিয়া কাপে চ্যাম্পিয়ন হওয়া শ্রীলংকা।

টার্গেট তাড়া করতে নেমে জয়ের লক্ষ্যে উড়ন্ত সূচনা করে ইংল্যান্ড। অ্যালেক্স হেলসকে সঙ্গে নিয়ে ৭.২ ওভারে ৭৫ রানের জুটি গড়েন অধিনায়ক জস বাটলার।

এরপর মাত্র ৩১ রানের ব্যবধানে ৪ উইকেট হারিয়ে কিছুটা চাপের মধ্যে পড়ে যায় ইংলিশরা। ২৩ বলে ২৮ রানে ফেরেন বাটলার। ৩০ বলে সাত চার আর এক ছক্কার সাহায্যে ৪৭ রান করে আউট হন অন্য ওপেনার অ্যালেক্স হেলস।

৭ রানের ব্যবধানে দুই ওপেনারের বিদায়ের পর দলের হাল ধরতে পারেননি হ্যারি ব্রুকস ও লিয়াম লিভিংস্টোন। তারা দুজনেই ৪ রান করে ফেরেন। ৫ বলে ১ রানে আউট হন অলরাউন্ডার মঈন আলী।

এরপর স্যাম কারানকে সঙ্গে নিয়ে দলকে জয়ের কাছাকাছি নিয়ে যান অলরাউন্ডার বেন স্টোকস। জয়ের জন্য শেষ দিকে ১৩ বলে ইংল্যান্ডের প্রয়োজন ছিল ১৩ রান। ১৮তম ওভারের শেষ বলে ছক্কা হাঁকাতে গিয়ে বাউন্ডারিতে ক্যাচ তুলে দিয়ে বিদায় নেন স্যাম কারান।

জয়ের জন্য শেষ দিকে ১২ বলে ইংল্যান্ডের প্রয়োজন ছিল ১৩ রান। ১৯তম ওভারে ৮ রান আদায় করে নেন বেন স্টোকস ও ক্রিস ওকস।

শেষ ওভারে ইংল্যান্ডের প্রয়োজন ছিল মাত্র ৫ রান। ওভারের প্রথম দুই বলে ডাবল-সিঙ্গেল মিলে ৩ রান আদায় করে নেন বেন স্টোকস-ক্রিস ওকস। তৃতীয় বল ডট।

ওভারের চতুর্থ বলে বাউন্ডারি হাঁকিয়ে ২ বল আগেই দলের জয় নিশ্চিত করেন পেসার ক্রিস ওকস। দলের জয়ে ৩ বলে ৫ রানে অপরাজিত থাকেন তিনি। আর ৩৬ বলে ২ বাউন্ডারিতে ৪২ রানে অপরাজিত থাকেন বেন স্টোকস।

এর আগে ব্যাটিং করতে নেমে পাথুম নিশাঙ্কার ব্যাটে ভর করে ১৪১ রানের সংগ্রহ পায় লঙ্কানরা। নিশাঙ্কা ৪৫ বলে ২টি চার ও ৫টি ছয়ে করেন ৬৭ রান। এই ব্যাটসম্যান ছাড়া আর কেবল দুই ব্যাটসম্যান ডাবল ডিজিট স্পর্শ করতে পেরেছেন। এর মধ্যে ভানুকা রাজাপাকসের ব্যাট থেকে ২২ এবং কুশল মেন্ডিসের ব্যাট থেকে আসে ১৮ রান।

ইংলিশদের পক্ষে পেসার মার্ক উড মাত্র ২৬ রানের বিনিময়ে ৩ উইকেট শিকার করেন। এ ছাড়াও অন্য চার বোলার নেন ১টি করে উইকেট।