Opu Hasnat

আজ ৩০ নভেম্বর বুধবার ২০২২,

ফরিদপুর হবে মাদক ও সন্ত্রাস মুক্ত : নবাগত পুলিশ সুপার ফরিদপুর

ফরিদপুর হবে মাদক ও সন্ত্রাস মুক্ত : নবাগত পুলিশ সুপার

ফরিদপুরের নবাগত পুলিশ সুপার মোঃ শাহজাহান (পিপিএম সেবা) বলছেন, ফরিদপুরের পুলিশ  মাদকের বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স নীতি অনুসরণ করবে। মাদক ব্যবসায়ী, মাদক সেবনকারী কাউকেই কোন ছাড় দেয়া হবে না। তিনি বলেন ফরিদপুর জেলা হবে মাদক ও সন্ত্রাস মুক্ত।

আমি যতদিন এ জেলায় কর্মরত থাকব ততদিন সকলের সাথে মিশে আইন শৃঙ্খলার উন্নয়নে ভূমিকা রাখবো। তিনি আরোও বলেন বঙ্গবন্ধু  সোনার বাংলা গড়তে যে স্বপ্ন দেখেছিলেন আমাদেরও সেই লক্ষ বাস্তবায়নে আরো কাজ করতে হবে।

মঙ্গলবার সকাল ১১টায় ফরিদপুর পুলিশ সুপারের কার্যালয়ের সম্মেলন কক্ষে সুধী সমাবেশ তিনি এসব কথা বলেন।

ফরিদপুর পুলিশ সুপার মোঃ শাহজাহান  (পিপিএম) এর সভাপতিত্বে এসময় বক্তব্য রাখেন ফরিদপুর জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শামীম হক, সাধারণ সম্পাদক ইশতিয়াক আরিফ, পৌর মেয়র অমিতাভ বোস, সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আব্দুর রাজ্জাক মোল্লা, সাংবাদিক ও শিক্ষাবিদ প্রফেসর মোঃ শাহজাহান, বীর মুক্তিযোদ্ধা ক্যাপ্টেন বাবুল প্রমুখ।

পুলিশ সুপার তার বক্তব্য আরো বলেন, ফরিদপুর পুলিশ সুপারের দরজা জনগণের জন্য ২৪ ঘন্টায় খোলা থাকবে। শুধু কাঠের দরজায় খোলা থাকবে না পুলিশ সুপারের মনও খোলা থাকবে সারাক্ষণ। এ জেলার সকল থানা হবে জনগণের জন্য নিরাপত্তার আশ্রয় স্থল। থানা হবে নিরাপদ আস্থার জায়গা, সেবার জায়গা। মামলা বা জিডিতে হয়রানি এ জেলার কেহ হবে না সে নির্দেশনা সকল থানা ইউনিটে দেয়া হয়েছে। তারপরও যদি কেউ হয়রানি হন সেক্ষেত্রে পুলিশ সুপারের দরজা খোলা তার অভিযোগ গ্রহণ করতে। তিনি বলেন, পুলিশ হবে জনতার এ স্লোগান শেষ হবে না।

রেজিষ্ট্রেশনবিহীন ও বেআইনীভাবে কোন মোটরসাইকেল চালানো যাবে না। হেলমেট ছাড়া কোন মোটরসাইকেল চালাতে পারবে না। দুই জনের বেশি তিনজন মোটরসাইকেলে চড়তে পারবে না। বাল্য বিবাহ বন্ধের জন্য সকলে মিলে কাজ করতে হবে। এর কুফল সম্পর্কে জানাতে হবে। বর্তমানে দেখা যায় বাল্য বিবাহের জন্য সমস্যা বেশি সৃষ্টি হচ্ছে। এটা রোধ করার জন্য সকলের এগিয়ে আসতে হবে।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ও সদ্য পদোন্নতিপ্রাপ্ত (পুলিশ সুপার) জামাল পাশা, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) সুমন রঞ্জন সরকার, কোতোয়ালি থানার ওসি এম এ জলিল, টি আই তুহিন লস্কর।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ডিএসবি) হেলাল উদ্দীন ভুঁইয়ার সঞ্চালনায় এ সময় রাজনীতিক, সরকারি চাকরিজীবী, পেশাজীবী, ব্যবসায়ী, সাংবাদিক, সুশীল সমাজের প্রতিনিধি ও এনজিও প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন।