Opu Hasnat

আজ ২৮ নভেম্বর সোমবার ২০২২,

ভুটানকে ৮ গোলে হারিয়ে সাফের ফাইনালে বাংলাদেশ খেলাধুলা

ভুটানকে ৮ গোলে হারিয়ে সাফের ফাইনালে বাংলাদেশ

সাফ চ্যাম্পিয়নশিপের সেমিফাইনালে সাবিনা খাতুনের হ্যাটট্রিকে ভুটানকে ৮ গোলে হারিয়ে ফাইনালে উঠলো বাংলাদেশ। সাফের সেমিফাইনালের শুরুটা দারুণভাবে করলো বাংলাদেশ। একের পর এক আক্রমণে প্রতিপক্ষকে চেপে ধরে শেষ পর্যন্ত ৮ গোল জালে জড়ালো লাল-সবুজ জার্সিধারীরা। এই জয়ে দ্বিতীয়বারের মতো সাফের ফাইনালে কোয়ালিফাই করলো তারা।

শুক্রবার (১৬ সেপ্টেম্বর) নেপালের কাঠমান্ডুর দশরথ স্টেডিয়ামে সাফের প্রথম সেমিফাইনালে ভুটানের বিপক্ষে ৮-০ ব্যবধানে জয়লাভ করে অনেকটা ফেভারিট হিসেবেই ফাইনাল নিশ্চিত করেছেন কৃষ্ণা-সাবিনারা। এই গোল উৎসবের ম্যাচেও নায়ক দলের অধিনায়ক সাবিনা খাতুন। ম্যাচে হ্যাটট্রিক করেছেন তিনি। একটি করে গোল করেন স্বপ্না, কৃষ্ণা রানী সরকার, ঋতুপর্ণা চাকমা, মাসুরা পারভীন ও তহুরা খাতুন।

দ্বিতীয় সেমিফাইনালে ভারতের বিপক্ষে মাঠে নামবে নেপাল। ঐ ম্যাচে জয়ী দলই ফাইনালে বাংলাদেশের প্রতিপক্ষ হিসেবে মাঠে নামবে। এ নিয়ে দ্বিতীয়বারের মতো সাফের ফাইনালে উঠল বাংলাদেশ। ২০১৬ সালে ভারতের শিলিগুঁড়ির আসরে প্রথম ফাইনাল খেলেছিল।  

ভুটানের বিপক্ষে জিতবে বাংলাদেশ এটা অনুমেয় ছিল। তবে ব্যাবধানটা কত হবে তা দেখার অপেক্ষা ছিল। পুরো ম্যাচে বাংলাদেশের মেয়েরা প্রাধান্য বিস্তার করে কোনো সুযোগই দেয়নি ভুটানকে। ভুটান একবারের জন্যও বাংলাদেশের রক্ষণভাগকে পরীক্ষায় ফেলতে পারেনি।

ম্যাচের ১ মিনিট ৩৪ সেকেন্ডেই গোল পেয়ে যায় বাংলাদেশ। মনিকা চাকমার থ্রু পাস নিয়ন্ত্রণে নিয়ে গোলরক্ষককে কাটিয়ে নিখুঁত কোনাকুনি শটে লক্ষ্যভেদ করেন সিরাত জাহান স্বপ্না। ১৭তম মিনিটে গোলরক্ষককে কাটিয়ে দূরূহ কোণ থেকে দারুণ গোলে ব্যবধান দ্বিগুণ করেন সাবিনা। মাঝমাঠের একটু উপর থেকে নিখুঁত ক্রসে এ গোলের সুর বেঁধে দিয়েছিলেন মারিয়া মান্ডা।

৩০তম মিনিটে মনিকার আড়াআড়ি ক্রসে কৃষ্ণার হেড এক ড্রপ খেয়ে জালে জড়ালে ম্যাচে চালকের আসনে বসে বাংলাদেশ। পাঁচ মিনিট পর মনিকার থ্রু পাস পোস্ট ছেড়ে বেরিয়ে এসে স্লাইড করলেও পুরোপুরি বিপদমুক্ত করতে পারেননি গোলরক্ষক। তিনি স্লাইড করার পর ঋতুপর্ণার পায়ে লেগে বল তার সামনেই পড়ে। বাঁ পায়ের নিচু শটে ফাঁকা পোস্টে বল জালে জাড়ান এই ফরোয়ার্ড।

৫৩তম মিনিটে সাবিনা নিজের দ্বিতীয় গোল দিলে বাংলাদেশ এগিয়ে যায় ৫-০ গোলে। ৫৭তম মিনিটে সাবিনার ফ্রিকিক ভুটানের গোলরক্ষকের হাত থেকে ছুটে গেলে মাসুরা পারভীন আলতো শটে বল জালে পাঠিয়ে ব্যবধান ৬-০ করেন।

৮৮তম মিনিটে বদলি তহুরা গোল করলে জয়ের ব্যবধান হয় ৭-০। ইনজুরি সময়ে নিজের হ্যাটট্রিক পূরণ করে দলের জয় নিশ্চিত করেন অধিনায়ক সাবিনা খাতুন।

গত তিনবারের মতো এবারও বাংলাদেশের জালের নাগাল পেল না ভুটান। চলতি সাফেও জাল অক্ষত রাখার দারুণ আত্মবিশ্বাস নিয়ে ফাইনালে উঠল ছোটনের দল! তবে বিশ্বস্ত ফরোয়ার্ড সিরাত জাহান স্বপ্নার চোট হতে পারে বড় দুর্ভাবনার কারণ। সন্ধ্যা পৌনে ৬টায় দ্বিতীয় সেমিফাইনালে মুখোমুখি হবে ভারত ও নেপাল। বিজয়ী দলের বিপক্ষে বাংলাদেশে শিরোপা জয়ের লড়াইয়ে নামবে ১৯ সেপ্টেম্বর।

উল্লেখ্য, এবারের আসরে চার ম্যাচেই ২০ গোল করে ফেললো বাংলাদেশ। গ্রুপ পর্বে মালদ্বীপকে ৩-০, পাকিস্তানকে ৬-০ ও ভারতকে ৩-০ গোলে হা।