Opu Hasnat

আজ ১৮ সেপ্টেম্বর শনিবার ২০২১,

ব্রেকিং নিউজ

খাগড়াছড়িতে আরও ২৬ জন করোনায় আক্রান্ত, ৩ জনের মৃত্যু খাগড়াছড়ি

খাগড়াছড়িতে আরও ২৬ জন করোনায় আক্রান্ত, ৩ জনের মৃত্যু

খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলাতে গত ২৪ঘণ্টায় আরও ২৬জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। পৃথক ভাবে মারা গেছেন ৩জন। একই দিন করোনায় প্রাণ গেল রামগড় ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ সভাপতি ও মানিকছড়ি উপজেলাতে এক সপ্তাহের ব্যবধানে আরো এক নারীর মৃত্যু হয়েছে। সোমবার দুপুরে জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ থেকে এ তথ্য নিশ্চিত করা হয়েছে।

খাগড়াছড়ির সিভিল সার্জন নুপুর কান্তি বিশ্বাস জানান, গত ২৪ঘণ্টায় ১০৭জনের নমুনা পরীক্ষায় ২৬জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। এতে করোনা শনাক্তের হার ২৪দশমিক ৩০শতাংশ। এ সময় করোনা উপসর্গ নিয়ে একজন মারা গেছেন। করোনা শনাক্তদের মধ্যে খাগড়াছড়ি জেলা সদরের-১৩জন, মাটিরাঙ্গার-৮জন, দীঘিনালার-৩জন এবং পানছড়িতে-১জন রয়েছেন।

চলতি মাসে মোট করোনা পরীক্ষা করা হয়েছে ২হাজার ৩৪২জনের। তাঁর মধ্যে ৬৯৪জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। মারা গেছেন ১৩জন। বর্তমানে হাসপাতালে ভর্তি আছেন ৪০জন। এর আগে গত রোববার খাগড়াছড়িতে করোনা শনাক্তের হার ছিল ১৯দশমিক ৩০শতাংশ।

এদিকে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে খাগড়াছড়ি জেলার মানিকছড়ি উপজেলার ছিনোয়ারা বেগম(৬৫) নামে আরো এক নারীর মৃত্যু হয়েছে। তিনি উপজেলার ৩নং যোগ্যাছোলা ইউনিয়নের ৪নং ওয়ার্ড আছাদতলী এলাকার বাসিন্দা মৃত মনু মিয়ার স্ত্রী। এ নিয়ে গত এক সপ্তাহের ব্যবধানে মানিকছড়িতে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে দুই নারীর মৃত্যু হয়েছে। তার ছেলে মুছা মিয়া মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। মঙ্গলবার (২০ জুলাই) ভোর সাড়ে ৪টার দিকে চট্টগ্রামের মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে করোনায় আক্রান্ত হয়ে সে মারা যান।

মৃতের পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, হার্ডের রোগসহ বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত ছিলেন ছিনোয়ারা বেগম। বেশ কয়েকদিন আগে তার বুকে ব্যথা ও শ্বাসকষ্ট হলে প্রথমে তাকে মানিকছড়ি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও পরে উন্নত চিকিৎসার জন্য চমেক হাসপাতালে প্রেরণ করা হয় এবং সেখানেই করোনা পরীক্ষায় তার রিপোর্ট পজেটিভ আসে। বেশ কয়েকদিন চিকিৎসা চললেও মঙ্গলবার ভোর ৪টার দিকে তার মৃত্যু হয়।

উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করার ব্যবস্থা নেয়ার কথা থাকলে প্রশাসনের উদাসীনতার কারণে পারিবারিক ভাবেই গোসল এবং দাফন কাজ সম্পন্ন করেছেন পরিবার ও স্থানীয় লোকজন।

উপজেলায় করোনায় আক্রান্ত রোগীর দাফন কার্যসম্পাদনার দায়িত্বে থাকা ইসলামি ফাউন্ডেশনের ভারপ্রাপ্ত মডেল কেয়ারটেকার মাওলানা আবুল কাশেম জানান, তার মৃত্যুর ব্যাপারে আমরা যখন জানতে পেরেছি তার পূর্বেই লাশের গোসল ও অন্যান্য কার্যক্রম সম্পন্ন হয়েছে এবং দুপুর ১২টায় লাশ দাফনের কথা থাকলেও তারা ১১টায় লাশ দাফন করেছে। লাশ আনার পূর্বে যদি আমাদের জানানো হত তবে আমরা যথাসময়ে পৌঁছাতে পারতাম এবং স্বাস্থ্যবিধি মেনে লাশ দাফনের ব্যবস্থা করতে পারতাম।

অপরদিকে খাগড়াছড়ির রামগড়ে করোনায় আক্রান্ত হয়ে রামগড় ১নং ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি ও ৬নং ওয়ার্ডের বর্তমান ইউপি সদস্য আব্দুল জলিল মারা গেছেন।  মঙ্গলবার (২০ জুলাই) সকাল ৭টায় চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন থাকা অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। তিনি ১নং রামগড় ইউনিয়নের থানাচন্দ্র পাড়া গ্রামের আব্দুল হামিদের ছেলে। ব্যক্তিগত জীবনে তিনি স্ত্রী, নয় সন্তানসহ অসংখ্য গুণগ্রাহী রেখে গেছেন। তিনি রামগড় ইউনিয়নের ৬নং ওয়ার্ডের দ্বিতীয় বারের মত নির্বাচিত ইউপি সদস্য ছিলেন।

পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, করোনা উপসর্গ নিয়ে পার্শ্ববর্তী জেলা ফেনীর একটি হাসপাতালে ভর্তি হন। সেখানে তার করোনা পরীক্ষার নমুনা দেয়া হলে করোনা পজেটিভ আসে। সে ডায়াবেটিস এবং হৃদ রোগের রোগী হওয়ায় অবস্থা অবনতি হলে উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে চমেক হাসপাতালে প্রেরণ করা হলে আই.সি.ইউতে নেয়া হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি শেষ নি:শ্বাস ত্যাগ করেন।

তার মৃত্যুতে রামগড় উপজেলা চেয়ারম্যান বিশ্ব প্রদীপ ত্রিপুরা, ইউনিয়ন চেয়ারম্যান শাহআলম মজুমদার ও আওয়ামীলীগসহ বিভিন্ন অঙ্গসংগঠনের নেতৃবৃন্দ শোক প্রকাশ করেন।

এই বিভাগের অন্যান্য খবর