Opu Hasnat

আজ ২১ অক্টোবর বুধবার ২০২০,

ব্রেকিং নিউজ

সুনামগঞ্জ শহরের হিন্দু কমিউনিটি নেতৃবৃন্দের সাথে পৌর মেয়রের মতবিনিময় সুনামগঞ্জ

সুনামগঞ্জ শহরের হিন্দু কমিউনিটি নেতৃবৃন্দের সাথে পৌর মেয়রের মতবিনিময়

হিন্দু সম্প্রদায়ের সবচেয়ে বড় ধর্মীয় উৎসব আসন্ন দূর্গাপূজাকে সামনে রেখে হিন্দু কমিউনিটি নেতৃবৃন্দের সাথে সুনামগঞ্জ পৌরসভার মেয়রের মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হযেছে। শুক্রবার রাত ৮টায় সুনামগঞ্জ পৌরসভার মেয়র নাদের বখতের আয়োজনে পৌরসভার হলরুমে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়। মেয়র নাদের বখতের সভাপতি ও পৌর কাউন্সিলর চঞ্চল কুমার লৌহ’র সঞ্চালনায় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন সুনামগঞ্জ জেলা আওয়ামীলীগের সিনিয়র সহ সভাপতি ও জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আলহাজ্ব নুরুল হুদা মুকুট। 

সভায় বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন, নারীনেত্রী শিলা রায়, সুনামগঞ্জ সরকারী কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ ও রামকৃষ্ণ আশ্রমের সভাপতি পরিমল কান্তি দে, সাধারন সম্পাদক ও বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ যোগেশ্বর দাস, জেলা মহিলা সংস্থার সভানেত্রী গৌরি ভট্টাচার্য্য, জেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি এড. বিমান কান্তি রায়, সাধারন সম্পাদক বিমল বণিক, পৌরসভার নির্বাহী প্রকৌশলী মীর মোশারফ হোসেন, শুক্লা রায় চৌধুরী, জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি জিতেন্দ্র তালুকদার পিন্টু, মতিলাল চন্দ, তাহিরপুর উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক অমল কান্তি কর, জেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি এড. বিমান কান্তি রায়, সাধারন সম্পাদক বিমল বণিক, পৌর আওয়ামীলীগের যুগ্ম সাধারন সম্পাদক লিটন সরকার, শ্যাম প্রদীপ কুমার চৌধুরী, দূর্গাবাড়ি পূজা কমিটির সভাপতি বিকাশ রঞ্জন চৌধুরী, সাধারন সম্পাদক সুবিমল চক্রবর্তী চন্দন, পৌর কমিটির সভাপতি সন্তোষ রায়, সাধারন সম্পাদক বিপ্রেশ রায় বাপ্পী, নারায়ন চক্রবর্তী, বাপ্পী দাস, শংকর বণিক, বিজন রায়, সুজিত দে, গৌরাংঙ্গ বণিক, সুমু, লিটন কর চয়ন দাস, চেয়ারম্যানের ব্যক্তিগত সহকারী মিলটন পুরকায়স্থসহ বিভিন্ন পাড়া পূজা কমিটির নেতৃবৃন্দরা এ সময় উপস্থিত ছিলেন। 

প্রধান অতিথির বক্তব্যে আওয়ামীলীগের সিনিয়র সহ সভাপতি ও জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আলহাজ্ব নুরুল হুদা মুকুট বলেছেন, দেশটির মূলমন্ত্র ছিল একটি অসাম্প্রদায়িক চেতনার বাংলাদেশ। যেখানে প্রতিটি ধর্মের মানুষ একটি স্বাধীন দেশের নাগরিক হিসেবে নির্বিঘ্নে এবং নিরাপদে তাদের ধর্মীয় আচার অনুষ্ঠান পালন করবেন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এদেশের জনগনের ভোটে নির্বাচিত হয়ে রাষ্ট্রীয় ক্ষমতায় এসে একটি শ্লোগান তুলেছেন ধর্ম যার যার উৎসব সবার সেই ধারাবাহিকতায়  যেকোন ধর্মের মানুষের ধর্মীয় উৎসব ঈদ হোক আর পূজা হোক আমরা সবাই মিলে উৎসেব শরিক হয়ে সমানভাবে আনন্দ ভাগাভাগি করে নেই। নেত্রীর একজন কর্মী হিসেবে আমরা সরকারের এজেন্ডা ও উন্নয়ন কর্মকান্ড বাস্তবায়নে অসাম্প্রদায়িক চেতনার বাংলাদেশ বির্নিমাণে দেশে বর্তমানে সাম্প্রদায়িকতার সেতুবন্ধন আরো সুদৃঢ হয়েছে বলে মন্থব্য করেন এবং আজীবন কর্মী হিসেবে কাজ করে যাওয়ার দৃঢ প্রত্যয় ব্যক্ত করেন। তিনি আরো বলেন আগামী সুনামগঞ্জ পৌরসভা নির্বাচনে মেয়র পদে বর্তমান মেয়র নাদের বখতের কোন বিকল্প নেই সে তার মাত্র আড়াই বছরের মেয়রকালীন সময়ে যথাসধ্য চেষ্টা করেছে এই শহরকে একটি আধুনিক শহরে পরিণত করার। সে অনেক ক্ষেত্রেই পৌরসভারি উন্নয়নে নিরলসভাবে কাজ করে যাওয়ার চেষ্টা অব্যাহত রেখেছে বলে তিনি মনে করেন। নাদের বখতের পরিবারের সদস্যরা সব সময় মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের সহায়ক শক্তি হিসেবে কাজ করেছেন। আগামী নির্বাচনে এই পৌরসভায় আমাদের দলীয় সভানেত্রী ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নাদেরকে নৌকার মাঝি করবেন বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন। 

সভাপতির বক্তব্যে সুনামগঞ্জ পৌরসভার মেয়র নাদের বখত উপস্থিত সকলকেই অগ্রিম শারদীয় দূর্গাপূজার শুভেচ্ছা জানিয়ে বলেছেন, এই সুনামগঞ্জ হচ্ছে সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির জেলা। এই জেলায় বিভিন্ন ধর্মের মানুষ যুগ যুগ ধরে সম্প্রীতির বন্ধন অটুট রেখে ধর্মকর্ম পালন করে চলেছেন। তিনি শারদীয় দূর্গাপূজা নির্বিঘ্নে ও কোন ধরনের অপ্রীতিকর ঘটনা ছাড়াই শান্তিপূর্ণভাবে প্রতিমা বিসর্জনের মধ্যে দিয়ে সমাপ্ত করার ঘোষনা দেন। তিনি পূজা চলাকালীন সময়ে রাস্তায় লাইটিং এর ব্যবস্থা করবেন এবং প্রতিটি পূজামন্ডপে দুইজন করে আনসার সদস্য মোতায়েনের জন্য জেলা প্রশাসক ও পুলিশ সুপারের নিকট জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান নুরুল হুদা মুকুটকে নিয়ে সমাধানের আশ্বাস দেন। যাতে করে ভক্তরা তাদের পরিবার পরিজন নিয়ে নির্বিঘ্নে পুরো শহরে ঘুরে ঘুরে স্বাস্থ্য সুরক্ষা সামগ্রী ব্যবহার করে সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে চলাচল করতে পারেন। পরিশেষে শহরের ২৪টি পূজামন্ডপে পৌরসভার পক্ষ থেকে প্রতিটি কমিটির নেতাদের হাতে ১০ হাজার টাকা করে ২ লাখ ৪০ হাজার টাকার চেক তুলে দেন জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান নুরুল হুদা মুকুট ও পৌরসভার মেয়র নাদের বখত। 

এই বিভাগের অন্যান্য খবর