Opu Hasnat

আজ ১৪ আগস্ট শুক্রবার ২০২০,

চুরি, ডাকাতি, মাদক নিয়ন্ত্রনে গাইবান্ধায় ওয়াচ টাওয়ার গাইবান্ধা

চুরি, ডাকাতি, মাদক নিয়ন্ত্রনে গাইবান্ধায় ওয়াচ টাওয়ার

ডাকাতি প্রতিরোধে আপনাদের এলাকাবাসীদের প্রতিরোধ গড়ে তুলতে হবে। গাইবান্ধা জেলা পুলিশের সার্বিক তত্তাবধানে ও  ১৫ নং কাপাসিয়া ইউনিয়ন পরিষদের আয়োজনে ভাটি কাপাসিয়া কাজিয়ার চরে দারুল আরকান এবতেদায়ী মাদ্রাসা মাঠে  চুরি, ডাকাতি, মাদক নিয়ন্ত্রনে ওয়াচ টাওয়ার উদ্বোধন ও জনসচেতনতামূলক মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথি হিসাবে গাইবান্ধা জেলা পুলিশ সুপার উপরোক্ত কথাগুলি বলেন। 

তিনি আরো বলেন,  বন্যা মৌসুমে এলাকায় ডাকাতি বেড়ে যায়। তারা জামালপুর জেলা সহ বিভিন্ন স্থান থেকে নৌকাযোগে এই এলাকায় ডাকাতি করতে আসে। এই এলাকায় ডাকাতির উদ্দেশ্যে  কোন দুষ্কৃতকারী বা কেউ ঢুকে যেন প্রসঙ্গিত হতে না পেরে সে জন্য এই চরে ওয়াচ টাওয়ার স্থাপন করা হচ্ছে। এর মাধ্যমে ডাকাতদের গতিবিধি লক্ষ্য করে ব্যবস্থা নেয়া হবে। এলাকায় কেউ চুরি, ডাকাতি করলে দোষীদের নিজ বাসা থেকে ধরে এনে আইনি ব্যবস্থা নেয়া হবে। পুলিশ জনবান্ধব। মানুষের সুখে দুখে পুলিশ কাজ করে থাকে।

নিজেকে সচেতন হতে হবে। বাল্য বিবাহ বন্ধ করতে হবে। সন্তানরা কে কোথায় যায় সে বিষয়ে অভিভাবকদের  খেয়াল রাখতে হবে। প্রতিকূলতার মধ্যে মানুষ হলে সে সন্তানরা শক্তিশালী হয়। 

এতে আরও  বক্তব্য রাখেন- সুন্দরগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ মো: আব্দুল্লা হিল জামান, সুন্দরগঞ্জ থানার তদন্ত অফিসার মো: বুলবুল ইসলাম, পুলিশ পরিদর্শক মোখলেছুর রহমান, ১৫ নং কাপাসিয়া ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান জালাল উদ্দিন সরকার প্রমুখ। 

এ সময় ১৫ নং কাপাসিয়া ইউনিয়নের বিবাহ ও তালাক রেজিস্টার সহ ইউনিয়ন পরিষদের সদস্য- সদস্যাবৃন্দ সহ বিভিন্ন প্রিন্ট ও ইলেক্ট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকরা উপস্থিত ছিলেন। এসময় পুলিশ সুপার প্রায় ২ হাজার শিশুর মাঝে শিশু খাদ্য বিতরণ করেন।