Opu Hasnat

আজ ৫ আগস্ট বুধবার ২০২০,

ব্রেকিং নিউজ

পাহাড়ের কর্মহীন গৃহবন্দি মানুষের পাশে খাগড়াছড়ি জেলা পরিষদ

৩য় ও ৪র্থ দফার পৃথকভাবে খাদ্য সহায়তা পেল মাটিরাঙ্গাবাসীরা খাগড়াছড়ি

৩য় ও ৪র্থ দফার পৃথকভাবে খাদ্য সহায়তা পেল মাটিরাঙ্গাবাসীরা

খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলা পরিষদের বাস্তবায়নাধীন ও পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্র্রনালয় আর্থিক সহযোগিতায় ৩য় ও ৪র্থ দফায় পৃথকভাবে প্রধানমন্ত্রীর উপহার খাদ্যসহায়তা পেল মাটিরাঙ্গা উপজেলা ও পৌরসভার কর্মহীন ও অসহায়, হতদরিদ্র প্রায় ৬৪০পরিবার। বৃহস্পতিবার (২ জুলাই) সকাল ১১টার দিকে মাটিরাঙ্গা পৌরসভা কার্যালয়ের সামনে খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান কংজরী চৌধুরী প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে এ সব কর্মহীনদের হাতে তুলে দেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উপহার খাদ্য সহায়তার প্যাকেট। 

এ সময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, মাটিরাঙ্গা উপজেলার দায়িত্বপ্রাপ্ত পার্বত্য জেলা পরিষদের সদস্য মো: আবদুল জববার, মাটিরাঙ্গা উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এম হুমায়ুন মোরশেদ খান, প্যানেল মেয়র আলা উদ্দিন লিটন ও মোহাম্মদ আলীসহ বিভিন্ন ওয়ার্ডের কাউন্সিলর বৃন্দ।

মাটিরাঙ্গা পৌরসভার মেয়র মো: শামছুল হকের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত প্রধানমন্ত্রীর উপহার বিতরণ কার্যক্রমে প্রধান অতিথি কংজরী চৌধুরী বলেন, করোনা ভাইরাসের প্রভাবে রোজগার বন্ধ হওয়া অসহায় কর্মহীন মানুষদের সহায়তায় পাশে দাড়িয়েছে সরকার। তিনি করোনাকে মোকাবেলায় স্বাস্থ্যবিধি মানার উপর গুরুত্বারোপ করে বলেন, সবাইকে মাস্ক ব্যবহার করতে হবে। করোনা বিষয়ে সচেতন থাকতে হবে এবং সামাজিক দুরত্ব বজায়ে সকলে যার যার অবস্থান থেকে ভুমিকা রাখতে হবে।

এদিকে পার্বত্য খাগড়াছড়ি জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান কংজরী চৌধুরী বলেছেন, স্বাস্থ্যবিধি মানার মধ্যদিয়ে করোনা মহামারীর বিরুদ্ধে যুদ্ধ করতে হবে মন্তব্য করে পাহাড়ের কর্মহীন গৃহবন্দি মানুষের পাশে দাড়িয়েছে পার্বত্য জেলা পরিষদ। বাংলাদেশের কোন মানুষ না খেয়ে মরতে পারেনা উল্লেখ করে তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশে করোনা মহামারী মোকাবেলায় শুরু থেকেই টাস্কফোর্স চেয়ারম্যান কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরা এমপির নেতৃত্বে আমরা কর্মহীন মানুষের মাঝে সমভাবে ত্রাণ বিতরন করে যাচ্ছি। এ সময় তিনি পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রী বীর বাহাদুর এমপি করোনায় আক্রান্তের ১৭দিন পর জয়ী হয়ে বাসায় ফিরতে সক্ষম হওয়ায় সৃষ্টিরকর্তার নিকট কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন। বৃহস্পতিবার (২ জুলাই) সকালে করোনা প্রাদুর্ভাবে কর্মহীন, শ্রমজীবি, দু:স্থ ও হত-দরিদ্র মানুষের মাঝে পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রনালয় ও খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলা পরিষদের সহযোগীতায় মাটিরাঙ্গা সদর ইউনিয়ন পরিষদের উদ্যোগে ছয় শতাধিক পরিবারের মাঝে খাদ্য সহায়তা বিতরণ কালে তিনি এ সব কথা বলেন।

এ সময় তিনি আরো বলেন, বৈশ্বিক মহামারী করোনা ভাইরাসের ছোবলে সারাবিশ্ব স্তম্বিত। এক অদৃশ্য শক্তির বিরুদ্ধে চলছে আমাদের লড়াই। কোন অস্ত্র বা গোলাবারুদ নয়, স্বাস্থ্যবিধি মেনেই এ ভাইরাসের বিরুদ্ধে লড়তে হবে। স্বাস্থ্যবিধি মেনেই করোনা ভাইরাস মোকাবেলা করতে হবে।

মাটিরাঙ্গা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হিরনজয় ত্রিপুরার সভাপতিত্বে খাদ্য সহায়তা বিতরণী অনুষ্ঠানে খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলা পরিষদের সদস্য মো: আব্দুল জব্বার, মাটিরাঙ্গা উপজেলা নির্বাহী অফিসার বিভীষণ কান্তি দাশ, মাটিরাঙ্গা উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এম হুমায়ুন মোরশেদ খান ও মাটিরাঙা প্রেস ক্লাবের সভাপতি এমএম জাহাঙ্গীর আলম প্রমুখ বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন। এসময় মাটিরাঙ্গা ইউসিসিএ লি. এর চেয়ারম্যান মো: জাকির হোসেন বাবলু, মাটিরাঙ্গা সদর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারন সম্পাদক কোকোনাথ ত্রিপুরা, ইউপি সচিব কিশোর ধামাই, মাটিরাঙ্গা ইউপি দিপার মোহন ত্রিপুরা, চন্দ্র কিরণ ত্রিপুরা ও মলেন্দ্র লাল ত্রিপুরা, অমৃত কুমার ত্রিপুরা, রজনী ত্রিপুরা, সুমন ত্রিপুরা, ধর্ম জ্যোতি ত্রিপুরা ছাড়াও স্থানীয় হেডম্যান কার্বারী ও গণ্যমান্য ব্যাক্তিবর্গ প্রমুখরা উপস্থিত ছিলেন।

পরে মাটিরাঙ্গা ইউনিয়ন পরিষদের সামনে বিভিন্ন প্রজাতির বৃক্ষরোপন করেন খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান কংজরী চৌধুরীসহ আমন্ত্রিত অতিথিবৃন্দ।

এই বিভাগের অন্যান্য খবর