Opu Hasnat

আজ ৯ এপ্রিল বৃহস্পতিবার ২০২০,

৪২ এ সাংবাদিক একেএম সীমান্ত মিডিয়া

৪২ এ সাংবাদিক একেএম সীমান্ত

সাবেক ছাত্রনেতা, ২ বাংলার জনপ্রিয় মিডিয়া ব্যাক্তিত্ব, সাংবাদিক একেএম সীমান্তের আজ ৪২ তম জন্মদিন। ১৯৭৮ সালের এই দিনে রাজাধানী ঢাকার এক সম্ভ্রান্ত পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন তিনি। প্রকৃত নাম মোঃ খোরশেদ আলম ভূঁঈয়া। বর্তমানে তিনি বাংলাদেশের অন্যতম প্রথম শ্রেণীর দৈনিক পত্রিকা, নাঈমুল ইসলাম খান সম্পাদিত ‘দৈনিক আমাদের অর্থনীতি’ পত্রিকার স্টাফ রিপোর্টার হিসেবে কর্মরত আছেন। এর আগে তিনি দীর্ঘদিন ‘দৈনিক যুগান্তর’ এর রাজধানীর খবর পাতায় প্রদায়ক হিসেবে নিয়মিত লিখেছেন । 

এছাড়া ভারতের নাটক ও সিনেমা জগতের সাথেও রয়েছে তাঁর নিবিড়  সম্পর্ক। ভারতের অন্যতম ফিল্ম নির্মাণকারী মিডিয়া প্রতিষ্ঠান ক্যাথারসীস মিডিয়া এন্ড এন্টারটেইনমেন্ট প্রাইভেট লিমিটেড এর ক্রিয়েটিভ ডিরেক্টর হিসেবে কাজ করছেন তিনি। 

সাংবাদিক সীমান্ত ভারতের পশ্চিমবঙ্গের বিশ্বখ্যাত রবীন্দ্র ভারতী বিশ্ববিদ্যালয় থেকে নাট্যতত্ত্ব ও পরিচালনা বিষয়ে দেড়যুগ পূর্বে উচ্চতর শিক্ষা গ্রহন করেন। এর আগে ১৯৯৬ সালে ঢাকা কলেজ থেকে উচ্চ মাধ্যমিক সম্পন্ন করেন তিনি। ঢাকা কলেজে অধ্যয়নকালীন সময়েই বাংলাদেশের ১ম সারির নাট্যচর্চা কেন্দ্র থিয়েটার (আরামবাগ) এর একনিষ্ঠ কর্মী হিসেবে কাজ করেন। এছাড়া স্কুল জীবনের প্রাথমিক পর্যায় থেকেই বাংলাদেশ স্কাউটের সদস্য হিসেবে যুক্ত ছিলেন। পরবর্তীতে সাফল্যের সাথে ১৯৯৪ সালে মাধ্যমিক পরীক্ষার্থী থাকাকালীন ৫ম এশীয়া প্যাসিফিক জাম্বুরীতে অংশগ্রহন করে সাফল্যের সাথে স্কাউট জাম্বুরী মেডেল অর্জন করেন। ঢাকা কলেজে অধ্যয়নকালীন ১৯৯৫ সালে সক্রিয় সদস্য হিসেবে যোগদান করেন বাংলাদেশ রেডক্রিসেন্ট সোসাইটি তে। যুক্ত আছেন এখনো। 

রবীন্দ্র ভারতী বিশ্ববিদ্যালয় থেকে নাটক বিষয়ে উচ্চতর শিক্ষা গ্রহন করেও বাংলাদেশের নাট্যজগতে সংগত কারনেই কোন কাজ করতে না পেরে সাংবাদিকতায় পথচলা শুরু করেন ২০০২ সালে। বাংলাদেশের অন্যতম প্রথম সারির পত্রিকা দৈনিক যুগান্তরের সাবেক বার্তা সম্পাদক মাহমুদ আনোয়ার হোসেন সম্পাদিত দেশের ১ম অনলাইন নিউজ পোর্টাল গ্লোবাল নিউজ নেটওয়ার্ক (জিএনএন) এর রিপোর্টার হিসেবে সাংবাদিকতার হাতেখড়ি। একাধারে লিখেছেন দৈনিক যুগান্তর, দৈনিক জনকন্ঠ, দৈনিক আজকের বসুন্ধরা, টাইমস টুয়েন্টি ফোর ডটনেট, দৈনিক আলোর জগত, সাপ্তাহিক মুক্তমন, সাপ্তাহিক দেশ দূর্নীতি, সাপ্তাহিক বিশেষ সংবাদ, দি ডেইলী বাংলাদেশ টুডে, দি ডেইলী এশিয়া পোষ্ট ইত্যাদি বিভিন্ন পত্রিকায়। তবে দৈনিক যুগান্তরের ভ্রমণ ও নগর প্রতিবেদক হিসেবে পাঠকমহলে সুপরিচিতি লাভ করেন সাংবাদিক সীমান্ত। 

২০০১ সালে বাংলা একাডেমীর বইমেলায় প্রকাশিত হয় ১ম প্রবন্ধ গ্রন্থ ‘তারছিড়া’। এরপর ২০০৭ সালে প্রকাশ হয় ২য় গ্রন্থ ‘এখনই সময়’। প্রকাশের অপেক্ষায় রয়েছে ৩য় গ্রন্থ ‘দিনবদলের স্বপ্নকন্যা, শেখ হাসিনা’। 

১৯৯৩-৯৬ সালে মতিঝিল থানা ছাত্রলীগের (শওকত-বিপ্লব পরিষদ) কার্যনির্বাহী সদস্য হিসেবে সক্রিয় থেকে অসহযোগ আন্দোলন অংশগ্রহণ করেন। সদা সত্য প্রকাশে নির্ভীক সাংবাদিক সীমান্ত সাপ্তাহিক মুক্তমন পত্রিকায় কমলাপুর রেলওয়ে থানার অফিসার ইনচার্জ আব্দুল মজিদের মাদক ব্যবসার সংশ্লিষ্টতা নিয়ে প্রতিবেদন লিখে ২০১৬ সালের ১৪ জুন ঐ থানার মিথ্যা মামলায় গ্রেফতার হয়ে ৭ দিন কারাবাস করেন। 

ব্যক্তি জীবনে ১ কন্যা আশুরা মেহরীন নদী (১৩) ও ১ পুত্র ইব্রাহীম আলম ভূঁঈয়ার (১০) জনক সাংবাদিক সীমান্ত। স্ত্রী মারুফা ইসলাম আইন বিষয়ে পড়ালেখা করেও সুগৃহিনী হিসেবেই জীবন যাপন করছেন। ‘বাংলাদেশ এক্সপ্রেস’, ‘দৃষ্টিপাত’, ‘তিনি একজন’ তাঁর নির্মিত জনপ্রিয় তথ্যচিত্র। 

উল্লেখ্য, জন্মদিনেই তিনি মারুফা ইসলামের সাথে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন ২০০৪ সালে। তাই ৪২ তম জন্মদিনের সাথে আজ তাঁর ১৬ তম বিবাহবার্ষিকী। ভারতে উচ্চ শিক্ষা নিলেও সাংবাদিক সীমান্তের প্রথম প্রেম বাংলাদেশ ও বাঙ্গালীত্ব। যে কারনেই অন্য যে কোন স্থানের তুলনায় তিনি পশ্চিমবঙ্গ ও কলকাতাকে বেছে নিয়েছেন তাঁর অধ্যয়নস্থল হিসেবে। 

সাংবাদিক একেএম সীমান্তকে জন্মদিন ও বিবাহবার্ষিকী’র আন্তরিক অভিনন্দন ও শুভেচ্ছা।

এই বিভাগের অন্যান্য খবর