Opu Hasnat

আজ ৩ এপ্রিল শুক্রবার ২০২০,

রাজবাড়ীতে “হড়াই খননের নামে মাটি বানিজ্য” প্রতিবাদ ও প্রতিকার চেয়ে গণ আবেদন রাজবাড়ী

রাজবাড়ীতে “হড়াই খননের নামে মাটি বানিজ্য” প্রতিবাদ ও প্রতিকার চেয়ে গণ আবেদন

রাজবাড়ী সদর উপজেলার চন্দনী ইউনিয়নের মধ্য দিয়ে বয়ে যাওয়া হড়াই নদী খননের নামে মাটি বানিজ্যর অভিযোগ উঠেছে। অবৈধভাবে ব্যক্তিগত জমি থেকে মাটি কাটা নিয়ে পানি উন্নয়ন বোর্র্ড ও এলাকাবাসীর মধ্যে চরম উত্তেজনা দেখা দিয়েছে। গত রবিবার মাটি কাটতে গেলে চন্দনী ইউনিয়নের ৮ নং ওয়াডের্র নির্বাচিত সদস্য যুবরাজ শেখকে মারপিটের ঘটনাও ঘটেছে। 

অবশেষে মঙ্গলবার দুপুরে চন্দনী ইউনিয়নের ১৬২ জন গ্রামবাসীর স্বাক্ষরিত একটি গন আবেদন রাজবাড়ী জেলা প্রশাসকের কাছে জমা দেন এলাকাবাসী। এ সময় চন্দনী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান চৌধুরী সিরাজুল আলম সিরাজ, ৮ নং ওয়াডের্র নির্বাচিত সদস্য যুবরাজ শেখ, চন্দনী ইউনিয়নের বাসিন্দা চাদ আলী, সুধাংশু, অরুনসহ অন্তত শতাধীক এলাকাবাসী উপস্থিত ছিলেন।  

এ সময় রাজবাড়ীর জেলা প্রশাসক দিলসাদ বেগম বিষয়টি গুরুত্ব সহকারে দেখবেন বলে উপস্থিত এলাকাবাসীকে আশ্বস্থ্য করেন।

গণ আবেদনে উল্লেখ এলাবাসী জানান, নদী খননে তাদের কোন আপত্তি নেই। কিন্তুু নদী খননের নামে ব্যক্তি মালিকানাধীন জমি থেকে মাটি কেটে নিয়ে বিক্রি করা কেউ মেনে নিবে না।  

উল্লেখ্য, পানি উন্নয়ন বোর্ডের তথ্যমতে, ২ কোটি ৮ লক্ষ টাকা ব্যয়ে এডিবির অর্থায়নে গত বছরের জুন থেকে নভেম্বর পর্যন্ত হড়াই নদী খনন করা হয়। এরমধ্যে ৭০ শতাংশ কাজ শেষ হয়েছে। চলতি বছরের মে মাস পর্যন্ত প্রকল্পের মেয়াদ বাড়ানোর অনুমতি করেছে ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান এসএএসআই ও রুহুল আমিন জেভি। 

এই বিভাগের অন্যান্য খবর