Opu Hasnat

আজ ২৯ মার্চ রবিবার ২০২০,

সুনামগঞ্জে একটি হ্যোমিও প্যাথিক কলেজ নির্মান করা হবে : চপল সুনামগঞ্জ

সুনামগঞ্জে একটি হ্যোমিও প্যাথিক কলেজ নির্মান করা হবে : চপল

সুনামগঞ্জ জেলা যুবলীগের আহবায়ক ও সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান খায়রুল হুদা চপল বলেছেন, চিকিৎসা জগতে হ্যোমিও প্যাথিক  হচ্ছে স্থায়ী রোগ নিরাময়ের একটি আধুনিক চিকিৎসা। স্বাধীনতা পরবর্তী জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান হ্যোমিও প্যাথিক চিকিৎসার প্রসারে অনেক কাজ করে গেছেন এখন তার সুযোগ্য উত্তরসূরী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকার সাড়া বাংলাদেশে হ্যোমিও প্যাথিক চিকিৎসার প্রসারে সাধারন মানুষের স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিত করার লক্ষ্যে বিভিন্ন জেলাতে হ্যোমিও প্যাথিক কলেজ হাসপাতাল নির্মাণ করে যাচ্ছেন। তিনি আরো বলেন, হ্যোমিও প্যাথিক চিকিৎসা হচ্ছে স্বপ্ল টাকায় গরীব ও অসহায় মানুষজনের স্থায়ী চিকিৎসা। তিনি প্রধানমন্ত্রী ও পরিকল্পনামন্ত্রী আলহাজ্ব এম এ মান্নানের সাথে পরার্মশ করে সুনামগঞ্জে একটি আধুনিক হ্যোমিও প্যাথিক কলেজ নির্মাণের প্রতিশ্রুতি ও প্রদান করেন।

তিনি বৃহস্পতিবার বিকেল ৪টায় হ্যোমিওপ্যাথি সোসাইটি সুনামগঞ্জ জেলা শাখার আয়োজনে ও মিডিয়া পার্টনার মোহনা টেলিভিশনের সহযোগিতায় শহরের শহীদ জগৎজ্যোতি পাঠাগার মিলনায়নে  বাংলাদেশ হ্যোমিওপ্যাথি সোসাইটি সুনামগঞ্জ জেলা শাখার ত্রি-বার্ষিকী সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে খায়রুল হুদা চপল এসব কথা বলেন। 

হ্যোমিওপ্যাথি সোসাইটি সুনামগঞ্জ জেলা শাখার সভাপতি দেবব্রত বণিকের সভাপতিত্বে ও ডাঃ সাজ্জাদুর রহমান ও ডাঃ ফরহাদ হোসেনের যৌথ সঞ্চালনায় সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, সুনামগঞ্জ জেলা যুবলীগের আহবায়ক ও সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান খায়রুল হুদা চপল। সভায় বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন, বাংলাদেশ হ্যোমিওপ্যাথি সোসাইটি কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি ডাঃ ইমদাদুল হক, সুনামগঞ্জ সদর উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান এড. মোঃ আবুল হোসেন, সিলেট জালালাবাদ হ্যোমিওপ্যাথিক মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ ডাঃ এম এ মুজাহিদ খাঁন, হ্যোমিওপ্যাথি সোসাইটি কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারন সম্পাদক ডাঃ নাজমুল হক, সিলেট জেলা হ্যোমিও প্যাথিক সোসাইটির সভাপতি ডাঃ শরীফ শাহরিয়ার চৌধুরী, সুনামগঞ্জ পৌরসভার সাবেক ভারপ্রাপ্ত মেয়র ও জেলা যুবলীগের সিনিয়র সদস্য নুরুল ইসলাম বজলু, সুনামগঞ্জ জেলা সাংবাদিক ফোরামের সভাপতি, মোহনা টেলিভিশন ও দৈনিক অধিকারের জেলা প্রতিনিধি কুলেন্দু শেখর দাস, ডাঃ ওবায়দুল হক মুন্সি, ডাঃ মোহাম্মদ হোসেন, ডাঃ আজিজুর রহমান ও ডাঃ রনধীর চন্দ প্রমুখ। 

আলোচনা শেষে এই জেলার হ্যোমিও প্যাথিক জগতের সুনামধন্য প্রয়াত ডাঃ উপেন্দ্র দাস ও প্রয়াত ডাঃ কমলা কান্ত দাস তালুকদারসহ ৯জন ডাক্তারের সন্তানদের হাতে মরনোত্তর সম্মাননা  ক্রেষ্ট ও সনদপত্র তুলে দেন অতিথিরা। এছাড়াও ৯জন প্রবীন ডাক্তার ও ৯ জন কর্মীবাহিনীর হাতে সম্মাননা ক্রেষ্ট তুলে দেন অতিথিবৃন্দরা। 

ডাঃ দেবব্রত বণিককে সভাপতি ও ডাঃ ওবায়দুল হক মুন্সিকে সাধারন সম্পাদক করে  ৭৬ সদস্য বিশিষ্ট সুনামগঞ্জ জেলা কমিটির নাম ঘোষনা করেন সংগঠনের কেন্দ্রীয় কমিটির নেতৃবৃন্দরা। 

এই বিভাগের অন্যান্য খবর