Opu Hasnat

আজ ১৬ ডিসেম্বর সোমবার ২০১৯,

মোরেলগঞ্জে সরকারি রাস্তা দখল করে অবৈধ করাত কল নির্মাণ! বাগেরহাট

মোরেলগঞ্জে সরকারি রাস্তা দখল করে অবৈধ করাত কল নির্মাণ!

বাগেরহাটের মোরেলগঞ্জ উপজেলার বহরবুনিয়া ইউনিয়নে সরকারি রাস্তা দখল করে করাত কল নির্মানের অভিযোগ পাওয়া গেছে। এতে করে ভোগান্তি বেড়েছে চলাচলকারী যানবাহন ও জনসাধারণের। 

সরেজমিনে জানা গেছে, অত্র ইউনিয়নের উত্তর ফুলহাতা গ্রাম থেকে ঘষিয়াখালী পর্যন্ত ৪ কিলোমিটারের এ রাস্তায় কতিপয় প্রভাবশালী ব্যক্তি রাতারাতি অবৈধভাবে করাত কল নির্মান করে । এ নিয়ে স্থানীয় লোকজন ও ভূক্তভোগীরা প্রবিাদ জানালেও প্রভাবশালীরা কোন কর্ণপাত করেনি। এমনকি সরকারি নিয়মনীতি ও জনসাধারণের নিষেধাজ্ঞাও তারা অমান্য করে করাত কল স্থাপন করে। 

জনগুরুত্বপূর্ণ এ রাস্তাটি থেকে মাধ্যমিক ও প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শত শত শিক্ষার্থী, শিক্ষক ও স্থানীয় জনসাধারণ, মোটরসাইকেল, ভ্যান, বাইসাইকেল প্রতিনিয়ত চলাচল করে। উত্তর ফুলহাতা হয়ে ঘষিয়াখালী সহ শনিরজোড় হয়ে জিউধরা, মংলা ও মোরেলগঞ্জ উপজেলা শহরে যাতায়েতের একমাত্র মাধ্যম রাস্তা। বিশেষ করে বর্ষা মৌসুমে কাঁদা পানিতে জনসাধারণের চলাচলে দুর্ভোগের আর সীমা থাকে না। তার উপর আবার রাস্তা আটকিয়ে ব্যবসা প্রতিষ্ঠান গড়ে তুলেছে।  মিল মালিক দাবিদার জনৈক মামুন মোল্লা বলেন, তাদের রেকর্ডিও পৈত্রিক সম্পত্তিতে মিল নির্মান করছেন। এ রাস্তাটিও তাদের জমির ওপর। 
  
বহরবুনিয়া ইউপি চেয়ারম্যান রিপন তালুকদার বলেন, উত্তর ফুলহাতা গ্রামে সরকারি রাস্তা আটকিয়ে করাত মিল তৈরি হচ্ছে। বিষয়টি শুনে তাৎক্ষনিক সেখানে গ্রাম পুলিশ পাঠানো হয়েছে এবং কাজ বন্ধ রাখার জন্য বলা হয়েছে।   

উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. কামরুজ্জামান জানান, প্রতিটি করাত মিলের বৈধ কাগজপত্র থাকতে হবে। পরিবেশ দপ্তরের ছাড়পত্র ছাড়া কোন করাত মিল স্থাপন করা যাবে না। উত্তর ফুলহাতায় সরকারি রাস্তা আটকিয়ে করাত মিল স্থাপনা বিষয়টি সত্যতা পেলে তাদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।