Opu Hasnat

আজ ১২ ডিসেম্বর বৃহস্পতিবার ২০১৯,

স্বাবলম্বী হতে যাচ্ছে রাজবাড়ীর ৪৭ হিজড়া রাজবাড়ী

স্বাবলম্বী হতে যাচ্ছে রাজবাড়ীর ৪৭ হিজড়া

মানুষের অবহেলা আর ঘৃনা নিয়ে নয় বাচতে চাই নিজের মতো করে। দাড়াতে চাই নিজের পায়ে। এমন প্রত্যয় নিয়ে রাজবাড়ীর হিজড়া জনগোষ্ঠির ৪৭ জন সদস্য দারস্থ্য হয় জেলা প্রশাসনের। জেলা প্রশাসনের সার্বিক সহযোগিতায় সমাজসেবা কার্যালয়ের তত্ত্বাবধানে ওই ৪৭ জন হিজড়া জনগোষ্ঠির জীবন মান উন্নয়নের ৫০ দিনের শেলাই ও কম্পিউটার প্রশিক্ষনের আয়োজন করা হয়। 

প্রশিক্ষন শেষে বৃহস্পতিবার সকালে রাজবাড়ীর জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের সম্মেলন কক্ষে প্রশিক্ষন প্রাপ্ত ওই হিজড়াদে হাতে সনদ ও প্রত্যেককে নগদ ১০ হাজার টাকার চেক তুলে দেওয়া হয়েছে।

এ সময় জেলা সমাজসেবা কর্মকর্তা রুবাইয়াত মোহাম্মদ ফেরদৌসের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তৃতা করেন রাজবাড়ীর জেলা প্রশাসক দিলসাদ বেগম। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, ভারপ্রাপ্ত সিভিল সার্জন ডাঃ মোঃ এম এ হান্নান, স্বপ্ন হিজড়া উন্নয়ন সংঘের সভাপতি তানিসা ইয়াসমিন চৈতি প্রমুখ।

এ সময় স্বপ্ন হিজড়া উন্নয়ন সংঘের সভাপতি তানিসা ইয়াসমিন চৈতি বলেন, হিজড়া জনগোষ্ঠি সমাজ ও পরিবার থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে বসবাস করে। সভ্য সমাজ আমাদের ভালো চোখে দেখে না। আমরা মানুষের কাছে হাত পেতে নয় কর্ম করে জীবন চালাতে চাই। আমাদের যে প্রশিক্ষন দেওয়া হয়েছে তা আমরা কাজে লাগিয়ে উপার্জন করতে পারবো। কিন্তুু এতেও সমস্যা আছে আমাদের যদি জেলা প্রশাসন, জেলা পরিষদ বা পৌরসভা থেকে একটি দোকান বরাদ্দ দেওয়া হয় তাহলে সেখানে আমরা সেলাই এর কাজ করতে পারবো। নীজেরা স্বাবলম্বি হতে পারবো।

জেলা প্রশাসক দিলসাদ বেগম বলেন, বর্তমান সরকার হিজরাদের জীবনমান উন্নয়নে কাজ করছে। তারা আর অবহেলিত থাকবে না। তাদের প্রশিক্ষন প্রদান করা হচ্ছে। প্রয়োজনে এদের পূর্নবাসনের উদ্যোগ নেওয়া হবে, কারন এরা সমাজের একটি অংশ।