Opu Hasnat

আজ ১২ ডিসেম্বর বৃহস্পতিবার ২০১৯,

পরিকল্পনামন্ত্রীর এপিএস হাসনাতকে নিয়ে অপপ্রচারের নিন্দা ও প্রতিবাদ সুনামগঞ্জ

পরিকল্পনামন্ত্রীর এপিএস হাসনাতকে নিয়ে অপপ্রচারের নিন্দা ও প্রতিবাদ

সুনামগঞ্জ-৩ (দক্ষিণ সুনামগঞ্জ ও জগন্নাথপুর) আসনের সংসদ সদস্য ও পরিকল্পনামন্ত্রী আলহাজ্ব এম এ মান্নানের এপিএস মোঃ আবুল হাসনাত হোসাইনকে নিয়ে দু-একটি পত্রিকা ও নিউজ পোর্টালে, হাসনাতের চরিত্র হননের উদ্দেশ্যে এমন বানোয়াট ও ভিত্তিহীন সংবাদ প্রকাশ ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন মুক্তিযোদ্ধা, রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দসহ বিভিন্ন স্তরের মানুষজন। সংবাদে প্রকাশ করা হয়েছে হাসনাত নাকি স্বাধীনতা বিরোধী সংগঠনের সদস্য ছিলেন। যার কোন ভিত্তি নেই। প্রকৃত পক্ষে হাসনাত হোসাইন একটি  মুক্তিযুদ্ধের স্বপক্ষের শক্তি আওয়ামীলীগ ঘরনা পরিবারের সন্তান।  ১৯৭১ সালের মুক্তিযুদ্ধে হাসনাত হোসাইনের পরিবার মুক্তিযোদ্ধাদের খাবার সংগ্রহ ও অন্যান্য সেবাজনক কাজে নিয়োজিত ছিলেন। এমনকি মুক্তিযুদ্ধের পক্ষে থাকায় পাকিস্তান হানাদার বাহিনী তাদের ঘরবাড়ি জ্বালিয়ে দিয়েছিল। পাকিস্থানী হানাদারদের নানা অত্যাচার নির্যাতনসহ ঘাত প্রতিঘাতের পরেও এই পরিবারটি মুক্তিযোদ্ধাদের সহযোগিতায় নিয়োজিত ছিল। হাসনাত সবসময়ই বঙ্গবন্ধুর আদর্শের পথেই ছিলেন। তিনি কখনোই অন্যকোন দল করতেন না কিংবা সম্পৃত্ত ও ছিলেন না।  কিন্তু একটি মহল সুবিধা নিতে না পেরে ইর্ষান্বিত হয়ে হাতেগোনা দুয়েকজন  গণমাধ্যমকর্মীকে মিথ্যা তথ্য দিয়ে একজন ভাল মানুষের সম্মান হননের অচেষ্টার অংশ হিসেবে এমন ভিত্তিহীন ও বানোয়াট সংবাদ পরিবেশন করেছেন।  

স্থানীয় লোকজনের অভিমত হাসনাত হোসাইন পরিকল্পনামন্ত্রীর অনুপস্থিতিতে উপজেলার সরকার দলীয় বিভিন্ন স্তরের নেতাকর্মীদের উৎসাহ প্রদানের মাধ্যমে সরকারের উন্নয়ন কর্মকান্ড তৃণমূল মানুষের কাছে পৌঁছে দিতে নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছেন। উপজেলার যেকোন অবহেলিত ও নির্যাতিত মানুষজন কোন কাজ নিয়ে তার কাছে গেলে তিনি নিঃস্বার্থভাবে তাদের কাজগুলো করে দিচ্ছেন। 

আবুল হাসনাত আওয়ামীলীগের একজন নিবেদিত কর্মী হিসেবে প্রতিনিয়ত অত্যন্ত সততা ও নিষ্ঠার সাথে কাজ করে যাচ্ছেন  এমন কথা জানালের দক্ষিণ সুনামগঞ্জ উপজেলা আওয়ামীলীগের সিনিয়র সহ সভাপতি হাজী তহুর আলী। তিনি বলেন আমি আওয়ামীলীগের প্রতিষ্ঠাতা জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুর আর্দশের একজন কর্মী হিসেবে আওয়ামীলেিগর রাজনীতি করে আসছি। আর হাসনাত আমার গ্রামের ছেলে হিসেবে তার পরিবার স্বাধীনতা পূর্ববর্তী ও পরবর্তী সময়ে তারা মুক্তিযুদ্ধ চলাকালীন সময় মুক্তিযোদ্ধাদের বিভিন্নভাবে সহযোগিতা করতে গিয়ে পাকিস্থানী হানাদারদের নির্যাতনের শিকার হয়েছেন। আর এখন একটি মহল সরকারের ও পরিকল্পনামন্ত্রীর উন্নয়নমূলক কর্মকান্ড যখন তিনি সততার সাথে তুণমূলের মানুষের দৌড়গড়ায় পৌছে দিতে কাজ করছেন  এই মহলটি ঈষান্বিত হয়ে তার বিরুদ্ধে অপপ্রচারের অংশ হিসেবে দুয়েকটি গণমাধ্যমকে ব্যবহার করে চরিত্র হননের অপচেষ্টার অংশ এটা। তিনি এমন মিথ্যা সংবাদ প্রচারে বিরত থাকতে গণমাধ্যম কর্মীদের প্রতি আহবান জানান। 

দক্ষিণ সুনামগঞ্জ উপজেলা প্রাথমিক বিদ্যালয় সহকারী শিক্ষক সমিতির সভাপতি সঞ্জয় কুমার তালুকদার বলেন, আমার জানা মতে হাসনাত অত্যান্ত ভালো এবং উদীয়মান তরুণ যুবক। সবসময়ই সবার পাশে পাওয়া যায়। তার ব্যবহার অত্যান্ত নমনীয়। যে বা যারা তার বিরুদ্ধে অপপ্রচার চালিয়েছে তার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি।                    

এ ব্যাপারে দক্ষিণ সুনামগঞ্জ উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডের সাবেক কমান্ডার আতাউর রহমান বলেন, হাসনাতের পরিবার মুক্তিযুদ্ধে অনেক অবদান রেখেছিলো। মুক্তিযুদ্ধের পক্ষে থাকায় পাকিস্তানিরা তাদের ঘরবাড়িও জ্বালিয়েছিলো। এই পরিবার মুক্তিযোদ্ধাদের অনেক সাহায্য সহযোগিতা করেছিলো। আমার জানা মতে হাসনাত অত্যান্ত ভালো মানুষ। তার বিরুদ্ধে যে অপপ্রচার চালানো হয়েছে আসলেই তা দুঃখ জনক। হাসনাত হোসাইন বলেন, আমি আওয়ামীলীগ পরিবারের সন্তান আমার বিরুদ্ধে মিথ্যা বানোয়াট সংবাদ প্রকাশ করা হচ্ছে। আমি এর তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাাদ জানান। 

এই বিভাগের অন্যান্য খবর