Opu Hasnat

আজ ১২ নভেম্বর মঙ্গলবার ২০১৯,

মুন্সীগঞ্জে মাদক বিক্রি ও সেবনে বাধাঁ দেওয়ায় যুবকের উপর সন্ত্রাসী হামলা মুন্সিগঞ্জ

মুন্সীগঞ্জে মাদক বিক্রি ও সেবনে বাধাঁ দেওয়ায় যুবকের উপর সন্ত্রাসী হামলা

মাদক বিক্রি ও সেবনে বাধা দেওয়ায় মাসুম শেখ (২৮) নামে এক যুবকের ওপর হামলা চালিয়ে গুরুতর আহত করেছে স্থানীয় সন্ত্রাসীরা। শনিবার (২ নভেম্বর) রাত ৮টার দিকে মুন্সীগঞ্জের টঙ্গীবাড়ী উপজেলার কাঠাদিয়া গ্রামে এ হামলার ঘটনা ঘটে। পরে স্থানীয় এলাকাবাসী রক্তাক্ত জখম অবস্থায় মাসুম শেখকে উদ্ধার করে টঙ্গীবাড়ী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন।

স্থানীয়রা জানান, মোঃ একাব্বর আলী শেখের ছেলে মোঃ মাসুম শেখের ব্যাটারি চালিত অটো গ্যারেজে স্থানীয় সন্ত্রাসী মতিন সরদারসহ ১০ থেকে ১২ জন মাদক সেবক ও বিক্রেতা প্রতিদিন রাতে জোর পূর্বক মাদক বিক্রি, সেবন করাসহ জোর পূর্বক অটো গাড়ি রেখে আসছিল। 

অটো গ্যারেজের মালিক মাসুম শেখ মতিন সরদারসহ তার সাঙ্গ-পাঙ্গদের মাদক সেবন-বিক্রি করতে ও অটোগাড়ি রাখতে নিষেধ করে আসছিল। এক পর্যায়ে মাসুম শেখ শনিবার রাতে মতিন সরদার বাহিনিকে তার গ্যারেজ থেকে বের হয়ে যেতে বলে। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে মতিন সরদারের সাথে মাসুম শেখের তার বাকবিতন্ডা ও হাতাহাতির সৃষ্টি হয়। 

পরে মতিন সরদার, আহাদ মিয়া, নাহিদ, স্বপন, আনোয়ার হোসেন, আকাশ ও ইব্রাহীমসহ ১০ থেকে ১২ জন সন্ত্রাসী মাসুম শেখের উপর লোহার রড দিয়ে হামলা চালিয়ে এলোপাথারি পিটিয়ে গুরুতর আহত করে। 

আহত মাসুম শেখ জানায়, আমার অটো গ্যারেজে মতিন সরদারসহ তার সন্ত্রাসী বাহিনিদের মাদক বিক্রি ও সেবন করতে নিষেধ করায় এবং জোর পূর্বক তাদের অটোগাড়ি রাখতে না দেওয়ায় তারা আমার ওপর হামলা চালায়। এ সময় আমি এক প্রান রক্ষার্থে দৌড়ে পাশের অন্য একটি বাড়িতে আশ্রয় নিলে সেখানে গিয়েও তারা ঘরের দরজা ভেঙে আমাকে পিটিয়ে গুরুতর আহত করে মৃত ভেবে ফেলে রেখে চলে যায়। 

এ প্রসঙ্গে টঙ্গীবাড়ী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) শাহ মো: আওলাদ হেসেন জানান, এ ঘটনায় উভয় পক্ষ থানায় লিখিত অভিযোগ করেছে। ঘটনাটি তদন্তের জন্য পুলিশ পাঠানো হয়েছে। তদন্ত সাপেক্ষে অপরাধিদের বিরুদ্ধে মামলা রুজু করে গ্রেফতার করে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।