Opu Hasnat

আজ ২২ নভেম্বর শুক্রবার ২০১৯,

‘এফডিসিতে না, মনে হয় পুলিশ ক্যাম্পে ঢুকলাম’ বিনোদন

‘এফডিসিতে না, মনে হয় পুলিশ ক্যাম্পে ঢুকলাম’

এফডিসিতে চলছে বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির দ্বি-বার্ষিক নির্বাচনের ভোট গ্রহণ। কিন্তু অভিযোগ উঠেছে এফডিসিতে চলচ্চিত্র পরিচালকদের ঢুকতে বাধা দেওয়া হচ্ছে। অভিনেতা ও পরিচালক সোহেল রানা এবং পরিচালক সোহানুর রহমান সোহান, বদিউল আলম খোকন ও দেলোয়ার জাহান ঝন্টুসহ অনেকেই এ অভিযোগ করেছেন।

তাদের অভিযোগ, এফডিসির গেট দিয়ে অনেক পরিচালককে ঢুকতে দেওয়া হয়নি। তাদের এফডিসির প্রবেশমুখে নানাভাবে হয়ারানি ও হেনস্তা করা হয়েছে। এমন কি অনেক গুণী নির্মাতার পরিচয়পত্র পর্যন্ত দেখতে চাওয়া হয়েছে। এ ঘটনার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন তারা।

এফডিসিতে গাড়ি ঢুকতে না দেওয়ায় ও নিরাপত্তা চৌকি পার হতে সময় লাগা নিয়ে নিজের প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেত গিয়ে সোহেল রানা গণমাধ্যমকে বলেন, ‘এফডিসিতে না, মনে হয় পুলিশ ক্যাম্পে ঢুকলাম।’

জানা গেছে, সকাল ১০টার দিকে ভোট দিতে এফডিসিতে আসেন চলচ্চিত্রের জ্যেষ্ঠ অভিনেতা ও প্রযোজক সোহেল রানা। কিন্তু নির্বাচনী পাস না থাকায় তাকে এফডিসিতে ঢুকতে বাধা দেওয়া হয়। খবর পেয়ে বাংলাদেশ চলচ্চিত্র প্রযোজক পরিবেশক সমিতির অফিস সহকারী সোমেন্দ্র চন্দ্র দাশ এফডিসির গেটে এসে সোহেল রানার পরিচয় নিশ্চিত করলেও তাঁকে ঢুকতে দেওয়া হয়নি। এ ঘটনা জানাজানি হওয়ার পর এফডিসির ভেতর থেকে ছুটে যান চলচ্চিত্রের অন্য শিল্পীরা, তারা সোহেল রানাকে এফডিসির ভেতরে নিয়ে আসেন।

এদিকে, পরিচালকদের এফডিসিতে প্রবেশে বাধা দেওয়া নিয়ে সহকারী নির্বাচন কমিশনার পীরজাদা হারুন বলেছেন, বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির দ্বি-বার্ষিক নির্বাচনে এফডিসির নিরাপত্তার খাতিরে সবার পরিচয়পত্র দেখতে চাওয়া হচ্ছে। পরিচালকরা ক্যামেরার পেছনের মানুষ, তাদের চিনতে না পারাটাই স্বাভাবিক। সুষ্ঠু সুন্দর নির্বাচনের স্বার্থে এফডিসিতে প্রবেশের ক্ষেত্রে এ কড়াকড়ি আরোপ করেছে কমিশন।

এব্যাপারে পরিচালক সমিতির মহাসচিব বদিউল আলম খোকন অভিযোগ করেন, এফডিসিতে শিল্পী সমিতির ভোটার বাদে, অন্য কাউকে ঢুকতে দেওয়া হচ্ছে না। আমাদের দাবি পরিচালক সমিতির সদস্যসহ সব সমিতির কলাকুশলীদের এফডিসিকে ঢুকতে দিতে হবে।

এক পর্যায়ে পরিচালক সমিতির উত্তপ্ত পরিবেশ শান্ত করতে সেখানে হাজির হন এফডিসির এমডি আবদুল করিম ও শিল্পী সমিতির সাবেক সভাপতি ও বর্তমান সভাপতি পদপ্রার্থী মিশা সওদাগর। বদিউল আলম খোকন তাদের কাছে জানতে চান, আজ এফডিসি কার নিয়ন্ত্রণে। জবাবে এমডি বলেন, আজ যেহেতু চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির নির্বাচন। তাই শিল্পী সমিতির নির্বাচন কমিশন এফডিসি নিয়ন্ত্রণ করছেন। প্রধান নির্বাচন কমিশনার ইলিয়াস কাঞ্চন নির্দেশে এ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে।

পাল্টা জবাবে বদিউল আলম খোকন জানান, পরিচালক সমিতি এ সিদ্ধান্ত মানেন না। এসময় মিশা সওদাগর তাকে বোঝানোর চেষ্টা করলে তারা বাক-বিতণ্ডায় জড়িয়ে পড়েন। এর এক পর্যায়ে মিশা সওদাগর ও এফডিসির এমডি পরিচালক সমিতি ত্যাগ করলে সমিতির মহাসচিব বদিউল আলম খোকন উত্তেজিত হয়ে লোকজন নিয়ে এর প্রতিবাদ জানান। তার নেতৃত্বে এফডিসিতে বিক্ষোভ মিছিল বের করে পরিচালক সমিতি।

উল্লেখ্য, আজ শুক্রবার সকাল দশটা থেকে বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির দ্বি-বার্ষিক নির্বাচনের ভোট গ্রহণ শুরু হয়েছে। বৃষ্টি উপেক্ষা করে সিনিয়র-জুনিয়র শিল্পীরা এফডিসিতে ভিড় করছেন। সেখানে নিমন্ত্রিত মিডিয়াকর্মী ও চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির সদস্য বাদে অন্য কোনো সমিতির সদস্যদের ঢুকতে দেওয়া হচ্ছে না। শান্তিপূর্ণভাবে সকাল থেকে ভোট চললেও বেলা সাড়ে এগারটার পরে হঠাৎই পরিচালক সমিতির সামনে পরিবেশ উত্তপ্ত হয়ে ওঠে। পরিচালক সমিতির অভিযোগ, তাদের এফডিসিতে ঢুকতে দিতে হবে।