Opu Hasnat

আজ ১৮ সেপ্টেম্বর বুধবার ২০১৯,

ব্রেকিং নিউজ

লোকবল সংকটে ঝিমিয়ে পড়েছে কৃষি উন্নয়ন কর্পোরেশন জীবননগর ইউনিট কৃষি সংবাদচুয়াডাঙ্গা

লোকবল সংকটে ঝিমিয়ে পড়েছে কৃষি উন্নয়ন কর্পোরেশন জীবননগর ইউনিট

লোকবল সংকটের কারনে ঝিমিয়ে পড়েছে বাংলাদেশ কৃষি উন্নয়ন কর্পোরেশন জীবননগর শাখার (ক্ষুদ্র সেচ) এর গভির নলকুপের কার্যক্রম।চুয়াডাঙ্গার জীবননগর বাংলাদেশ কৃষি উন্নয়ন কর্পোরেশন (ক্ষুদ্র সেচ) ইউনিটের কার্যালয়টি দামুড়হুদা উপজেলা পরিষদ চত্বরে অবস্থিত। এই কার্যালয়ে একজন উপ-সহকারী প্রকৌশলী, দুইজন মেকানিক ও একজন পিয়ন নিয়োগ থাকলে ও এখানে দীর্ঘদিন যাবত ইউনিটটির কার্যক্রম চালিয়ে আসছিলেন মেকানিক আজিজুর রহমান ও উপসহকারি-প্রকৌশলী শাহজালাল আবেদিন। এর মধ্যে উপসহকারি-প্রকৌশলী চুয়াডাঙ্গা ও মেহেরপুর জেলার অতিরিক্ত দায়িত্ব পালনের কারনে তিনি প্রতি সপ্তাহে দুই দিন অফিস করেন। দামুড়হুদায় অবস্থিত ইউনিটে একমাত্র মেকানিক আজিজুর রহমান নিয়মিত অফিস চালিয়ে গেলেও চলতি বছরের গত জুলাই মাসে সড়ক দুর্ঘটনায় তিনি মারা যান। এরপর থেকে ইউনিট টি রোববার ও বৃহস্পতিবার দুই দিন খোলা রাখা হয়। ফলে জীবননগর ও দামুড়হুদা উপজেলার কার্যক্রম স্থবির হয়ে পড়েছে। বাংলাদেশ কৃষি উন্নয়ন কর্পোরেশন (ক্ষুদ্র সেচ) এর এই ইউনিটটির আওতায় দামুড়হুদা উপজেলায় ১৩টি ও জীবননগর উপজেলায় ১১ টি মোট ২৪ টি সমিতির  বৈদ্যুতিক গভির নলকুপ রয়েছে। ইউনিট টিতে ৪ টি পদ থাকলে ও  বর্তমানে শুধু মাত্র এক জন উপসহকারি-প্রকৌশলীকে পালন করতে হচ্ছে সকল দায়িত্ব। এছাড়াও জীবননগর উপজেলায় কোন ইউনিট না থাকায় ২০কিলোমিটার দুরে দামুড়হুদায় এসে ক্ষুদ্র সেচ গভির নলকুপের প্রি-পেইড বিল পরিষদসহ গভির নলকুপের বিভিন্ন কার্যক্রম সম্পন্ন করতে হয়।

জীবননগর উপজেলার তেতুলিয় গ্রামের সমিতির ম্যানেজার কামরুজ্জামান ও ইস্রাফিল হোসেন বলেন, জীবননগর ইউনিটি দামুড়হুদায় হওয়ায় আমাদের ভোগান্তির শেষ নেয়। আমাদের সমিতির নলকুপের মিটারের বিদ্যুৎ বিল পরিষদ,কার্ড রিসার্স সহ সমিতির যাবতীয় কাজ করতে জীবননগর থেকে ২০কিলোমিটার দুরে দামুড়হুদায় যেতে হয়। এতে আমাদের যেমন সময় ব্যয় হয় তেমনি বাড়তি অর্থ খরচ  হয়। 
  
উপসহকারী প্রকৌশলী শাহজালাল আবেদিন জানান, ইউনিট টিতে ৪টি পদ থাকলে ও দীর্ঘদিন যাবত দুটি পদ শুন্য থাকায় তিনি ও মেকানিক আজিজুর রহমান মিলে দুইজন ইউনিট টি চালিয়ে আসলে ও আজিজুর রহমান মারা যাওয়ার কারনে সমস্ত দায়ীত্ব একা পালন করতে হচ্ছে।তাছাড়াও চুয়াডাঙ্গা ও মেহেরপুর জেলার অতিরিক্ত দায়িত্ব পালন করার কারনে এই ইউনিটে সপ্তাহে দুই দিন  জীবননগর ও দামুড়হুদা উপজেলার গভির নলকুপের প্রি-পেইড মিটারের বিদ্যুৎতের বিল নেওয়া ও কার্ড রিসার্স করতে হচ্ছে। তবে অচিরেই লোকবল বাড়বে বলে তিনি জানান।