Opu Hasnat

আজ ২২ অক্টোবর মঙ্গলবার ২০১৯,

শ্রীলঙ্কার কাছে আবারো হোয়াইটওয়াশ বাংলাদেশ খেলাধুলা

শ্রীলঙ্কার কাছে আবারো হোয়াইটওয়াশ বাংলাদেশ

শেষ ম্যাচেও লঙ্কানদের বিপক্ষে ১২২ রানের বড় ব্যাবধানে হেরেছে বাংলাদেশ। সেই সাথে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে হোয়াইটওয়াশ হয়েছে টিম টাইগাররা। লঙ্কানদের দেয়া ২৯৫ রানের জবাবে ৩৭ ওভারে সবকটি উইকেট হারিয়ে ১৭২ রানে গুটিয়ে যায়। দলের হয়ে একমাত্র সৌম্য সরকার ৬৯ রানের ইনিংস খেলেন। এছাড়া দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ৩৯ রান করেন তাইজুল ইসলাম।

কলম্বোয় সিরিজের শেষ ম্যাচে শ্রীলঙ্কার দেয়া ২৯৫ রানের টার্গেটে ব্যাটিংয়ে নেমে বিপর্যয়ে পড়েছে তামিম বাহিনী। ইনিংসের শুরুতেই তামিম আউট হয়ে ব্যাটিং বিপর্যয়ের সূচনা করেন। এরপর তামিমকে অনুসরণ করে এনামুল, মিঠুন, মুশফিক, মাহমুদউল্লাহ, সাব্বির, মিরাজও দ্রুত আউট হয়ে দলকে বিপদে ফেলে দেন।  তবে একপাশ আগলে রেখে ক্যারিয়ারে একাদশতম অর্ধশতক তুলে নেন সৌম্য। তবে বড় জুটির অভাবে ম্যাচ থেকে ছিটকে যায় বাংলাদেশ। তাইজুলকে নিয়ে কিছুটা প্রতিরোধ গড়ার চেষ্টা করেন সৌম্য। দলীয় ১৪৮ রানে ও ব্যক্তিগত ৬৯ রানে সৌম্য আউট হলে নিশ্চিত পরাজয়ের প্রহর গুনতে থাকে বাংলাদেশ। তবে ব্যাটসম্যানদের লজ্জা দিয়ে সৌম্যের পর দলের দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ৩৯ রান করে অপরাজিত থাকেন তাইজুল। বাংলাদেশ অলআউট হয় ১৭২ রানে। লঙ্কানদের পক্ষে শানাকা ৩, রাজিথা ২ ও কুমারা দুই উইকেট শিকার করেন। 

এর আগে টসে জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেয় শ্রীলঙ্কা। ব্যাটিংয়ে নেমে করুণারতেœ-পেরেরা, মেন্ডিস-ম্যাথুজ ও ম্যাথুজ-শানাকার জুটিতে নির্ধারিত ওভারে ৮ উইকেট হারিয়ে ২৯৪ রান করে ১৯৯৬-এর বিশ্ব চ্যাম্পিয়নরা। দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ৮৭ রান করেন ম্যাথুজ। সৌম্য সরকারের বলে মুশফিকের তালুবন্দি হওয়ার পূর্বে ৮ চার ১ ছক্কায় দুর্দান্ত ইনিংসটি সাজান ম্যাথুজ। বাংলাদেশের পক্ষে শফিউল ইসলাম ও সৌম্য সরকার তিনটি করে উইকেট শিকার করেন। এছাড়াও রুবেল হোসেন ও তাইজুল ইসলাম একটি করে উইকেট নেন।