Opu Hasnat

আজ ২০ অক্টোবর রবিবার ২০১৯,

এইচএসসি ও সমমানে পাসের হার ৭৩.৯৩ শতাংশ শিক্ষা

এইচএসসি ও সমমানে পাসের হার ৭৩.৯৩ শতাংশ

এ বছর উচ্চ মাধ্যমিক সার্টিফিকেট (এইচএসসি) ও সমমান পরীক্ষার ফল প্রকাশ করা হয়েছে। এতে গড় পাসের হার শতকরা ৭৩.৯৩ শতাংশ। এবছর জিপিএ-৫ পেয়েছেন মোট ৪৭ হাজার ২৮৬ জন।

গত বছর এ পরীক্ষায় পাসের হার ছিল ৬৬ দশমিক ৬৪ শতাংশ, জিপিএ-৫ পেয়েছিল ২৯ হাজার ২৬২ জন। সেই হিসাবে এবার উচ্চ মাধ্যমিকে পাসের হার বেড়েছে ৭ দশমিক ২৯ শতাংশ পয়েন্ট। আর পূর্ণাঙ্গ জিপিএ পাওয়া শিক্ষার্থীর সংখ্যা বেড়েছে ১৮ হাজার ২৪ জন।

আজ (১৭ জুলাই) সকাল ১০টায় শিক্ষামন্ত্রী দীপু মনি গণভবনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে ফলের সারসংক্ষেপ হস্তান্তর করেন। তার পরই প্রধানমন্ত্রী বাটন চেপে ফল প্রকাশ করেন। 

শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরীসহ বিভিন্ন শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যানরা এ সময় তার সঙ্গে ছিলেন।

দুপুর ১২টায় শিক্ষা মন্ত্রণালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে ফল প্রকাশ করা হবে। তার পরই শিক্ষার্থীরা নিজ নিজ কলেজ বা ইন্টারনেটের মাধ্যমে নিজেদের ফল জানতে পারবেন।

গত ১ এপ্রিল সারাদেশে এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষা শুরু হয়। শেষ হয় মে মাসের মাঝামাঝি সময়। ৯ হাজার ৮১টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের মোট ১৩ লাখ ৩৬ হাজার ৬২৯ শিক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশ নেয়। এরমধ্যে পাস করেছেন ৯ লাখ ৮৮ হাজার ১৭২ জন। ফেল করেছেন ৩ লাখ ৪৮ হাজার ৪৫৭ জন।

এর মধ্যে ৮টি সাধারণ শিক্ষা বোর্ডের ১১ লাখ ৩৮ হাজার ৫৫০ জন, মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ডে ৭৮ হাজার ৪৫১ এবং কারিগরি শিক্ষা বোর্ডে এক লাখ ২৪ হাজার ২৬৫ জন। মোট কেন্দ্রসংখ্যা ছিল ২ হাজার ৫৮০টি।

সিলেট বোর্ডে পাসের হার ৬৭.৫ শতাংশ, জিপিএ-৫ পেয়েছেন ১ হাজার ৯৪, দিনাজপুর বোর্ডে ৭১.৭৮, জিপিএ-৫ পেয়েছেন ৪ হাজার ৪৯, রাজশাহী শিক্ষা বোর্ডে ৭৬.৩৮, জিপিএ-৫ পেয়েছেন ৬ হাজার ৭২৯ জন।

শতভাগ পাস করেছে এমন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের সংখ্যা ৯০৯টি এবং একজনও পাস করেনি এমন প্রতিষ্ঠান ৪১টি। 

মাদরাসা বোর্ডে পাসের হার ৮৮.৫৬ শতাংশ। জিপিএ-৫ পেয়েছেন ২ হাজার ২৪৩ জন।

কারিগরি বোর্ডে পাসের হার ৮২.৬২ শতাংশ, আর জিপিএ-৫ পেয়েছেন ৩ হাজার ২৩৬ জন।