Opu Hasnat

আজ ১৪ নভেম্বর বুধবার ২০১৮,

দামুড়হুদা বিএনপির দুই গ্রুপের সংঘর্ষের মামলায় ৯ নেতাকর্মী আটক চুয়াডাঙ্গা

দামুড়হুদা বিএনপির দুই গ্রুপের সংঘর্ষের মামলায় ৯ নেতাকর্মী আটক


দামুড়হুদা মডেল থানার পুলিশ অভিযান চালিয়ে বিএনপির দুই গ্রুপের সংর্ঘষের  মামলার উভয় পক্ষের ৯ জনকে আটক করেছে। আটককৃতরা হলো,কার্পাসডাঙ্গা ইউনিয়ন বিএনপির সভাপতি কার্পাসডাঙ্গার কোমরপুর গ্রামের মৃত্যু সুন্নত আলীর ছেলে নোয়াজেস আলী (৪৬) একই ইউনিয়ন বিএনপির সাংগাঠনিক সম্পাদক হেমায়েত পুর গ্রামের মৃত্যু হেদায়েত আলীর ছেলে শওকত আলী(৪০), বিএনপি কর্মি কার্পাসডাঙ্গা ভূমিহিন পাড়ার সমাজ আলীর ছেলে শরিফুজ্জামান (২৮) জগোনাথপুর গ্রামের আব্দুর ছাত্তারের ছেলে হাবিবুর রহমান (৩৫)হেমায়েতপুর গ্রামের মৃত্যু দলিল উদ্দীনের ছেলে রশিদুল (৪০) একই গ্রামের মৃত্যু বাবর আলীর ছেলে আছমত আলী (৪০) মৃত্যু সাবদার আলীর ছেলে হয়রত আলী (৪০)মৃত্যু মতিয়ার রহমানের ছেলে বাবলু (৩৮) ও মৃত্যু মোহাম্মদ আলীর ছেলে আমিরুল ইসলাম। সোমবার দিনগত রাতে এদেরকে নিজ নিজ বাড়ী থেকে আটক করা হয়। আটককৃতদেরকে আদালতে সোর্পদ করা হয়েছে।
     
 দামুড়হুদা মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সুকুমার বিশ্বাস জানায়, গত ১১/০৮/২০১৮ বৃহস্পিতিবার বিকালে উপজেলার কার্পসডাঙ্গায় বিএনপির মনোনয়ন প্রত্যাশী মাহামুদ হাসান খাঁন বাবু ও হাজী ইঞ্জিনিয়ার মখলেছুর রহমান (টিপু তরফদার) দুই গ্রæপের মধ্যে গনসংযোগকে কেন্দ্রকরে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। পরদিন শুক্রবার উভয় গ্রæপ দামুড়হুদা মডেল থানায় মামলা দায়ের করেন। উক্ত মামলায় এদেরকে আটক করা হয়। আটককৃতদেরকে মঙ্গলবার দুপুরে আদালতে সোর্পদ করা হয়েছে।