Opu Hasnat

আজ ২২ নভেম্বর বৃহস্পতিবার ২০১৮,

ঢাকা থেকে অপহৃত কলেজ ছাত্রী সৈয়দপুরে উদ্ধার, গ্রেপ্তাতার ২ নীলফামারী

ঢাকা থেকে অপহৃত কলেজ ছাত্রী সৈয়দপুরে উদ্ধার, গ্রেপ্তাতার ২

সৈয়দা রুখসানা জামান শানু নীলফামারীর সৈয়দপুর থেকে : রাজধানী ঢাকার উত্তরা থেকে অপহৃত এক কলেজ ছাত্রীকে নীলফামারীর সৈয়দপুর উপজেলা হতে উদ্ধার করা হয়েছে। স্থানীয় থানা-পুলিশ সূত্র হতে জানা যায়, গত বৃহস্পতিবার (১৮ অক্টোবর) ঢাকার উত্তরা পশ্চিম থানা পুলিশ সৈয়দপুর থানা পুলিশের সহযোগিতায় সৈয়দপুর শহর হতে দূরে ১ নম্বর কামারপুকুর ইউনিয়নের বকশাপাড়া থেকে তাকে উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে দুই যুবককে গ্রেপ্তার করা হয়। গ্রেপ্তারকৃত যুবকদ্বয়  হচ্ছে সৈয়দপুর উপজেলার কামারপুকুর ইউনিয়নের বকশাপাড়ার মৃত. বাবুল মিয়ার ছেলে আব্দুর রহিম (২৫) ও একই এলাকার  খাদেমুল ইসলাম (৩০)।

অপহৃতা ঢাকার উত্তরা ৭’নম্বর সেক্টরের একটি কলেজের মানবিক বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্রী। ঘটনার দিন গত ১৪’অক্টোবর সে কলেজ ক্যাম্পাস থেকে বের হয়ে শহীদ গ্রেন মার্কেটে প্রয়োজনীয় কাগজপত্র ফটোকপি করতে যায়। এ সময় আব্দুর রহিম তাঁর সঙ্গীয় নুরুল ও কাদেরকে সঙ্গে নিয়ে একটি অটোরিকশা করে অপহরন করে। অপহরন পরে তাকে ঢাকার ডেমরা এলাকার একটি ম্যাচে বন্দি করে রাখা হয়। পরবর্তীতে তাকে অপহরণকারী আব্দুর রহিম তার গ্রামের বাড়ি নীলফামারীর সৈয়দপুর উপজেলার কামারপুকুর ইউনিয়নের বকশাপাড়া গ্রামে নিয়ে এসে বন্দি করে রাখে। অপহৃতা কলেজ ছাত্রীর বাড়ি গাজীপুরের টঙ্গী পূর্ব আরিচপুর এলাকার মৃত. এন্তাজ মিয়ার মেয়ে। এ ঘটনায় অপহৃতা কলেজ ছাত্রীর মামা এস এম মনির হোসেন জীবন গত ১৭’অক্টোবর ৫ জনকে আসামী করে ঢাকার উত্তরা পশ্চিম থানায় একটি অপহরণ মামলা দায়ের করেন। এ মামলা নং ৩৫। থানায় এ মামলা দায়ের করার পর উত্তরা পশ্চিম থানা পুলিশ অপহৃতা কলেজ ছাত্রীকে উদ্ধারে নামেন। 

উত্তরা থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) মো. মাহবুর রহমানের নেতৃত্বে উত্তরা পশ্চিম থানা পুলিশ নীলফামারীর সৈয়দপুরে আসেন। পরে তারা সৈয়দপুর থানা পুলিশের সহযোগিতায় সৈয়দপুর উপজেলার কামারপুকুর ইউনিয়নের বকশাপাড়া গ্রামের পৃথক পৃথক দুইটি বাড়ি থেকে কলেজ ছাত্রী অপহরণ মামলার প্রধান আসামী আব্দুর রহিম ও  খাদেমুলকে আটক করেন। পরে তাদের দেওয়া স্বীকারোক্তি অনুযায়ী একই এলাকার একটি বাড়ি থেকে অপহৃতা কলেজ ছাত্রীকে পুলিশ উদ্ধার করে। পরে তাদের রাতের বেলায় ঢাকার উত্তরা পশ্চিম থানায় নিয়ে যাওয়ার জন্য সৈয়দপুর হতে রওয়ানা দেয়।

সৈয়দপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (তদন্ত) মো. নুরুজ্জামান বেগ অপহৃতা কলেজ ছাত্রীকে উদ্ধারের বিষয়টি নিশ্চিত করেন।