Opu Hasnat

আজ ১৯ নভেম্বর সোমবার ২০১৮,

মুন্সীগঞ্জে ইলিশসহ জাল জব্দ, ১০ জেলেকে কারাদন্ড মুন্সিগঞ্জ

মুন্সীগঞ্জে ইলিশসহ জাল জব্দ, ১০ জেলেকে কারাদন্ড

নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে মুন্সীগঞ্জের বিভিন্ন উপজেলায় অভিযান চালিয়ে ইলিশ মাছ ধরার অপরাধে ১০ জন জেলেকে ভ্রাম্যমাণ আদালত কারাদন্ড ও অর্থদন্ডাদেশ দিয়েছেন। 
সোমবার সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত জেলার পদ্মা ও মেঘনা নদীতে অভিযান চালিয়ে তাদের আটকের পর এ দন্ডাদেশ দেওয়া হয়। 

মুন্সীগঞ্জ জেলা মৎস্য কর্মকর্তা নিপেন্দ্র নাথ বিশ্বাস এসব তথ্য নিশ্চিত করে জানান, ১০ জনের মধ্যে ছয় জনকে পাঁচ দিন করে বিনাশ্রম কারাদন্ড এবং চার জনকে ১২ হাজার টাকা করে জরিমানা করা হয়। এসময় ১ লাখ ২৬ হাজার মিটার জাল, ৬৬০ কেজি ইলিশ মাছ ও একটি মাছ ধরার নৌকা জব্দ করা হয়।

জেলা মৎস্য কর্মকর্তা নিপেন্দ্র নাথ বিশ্বাস আরো জানান, মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলায় কালীরচরে ভোর ৬টা থেকে বিকাল ৫টা পর্যন্ত অভিযান চালিয়ে ৫০ হাজার মিটার অবৈধ কারেন্ট জাল ও অবৈধভাবে শিকার করা ২৫০ কেজি মা ইলিশ জব্দ করা হয়। এসময় ছয় জেলেকে আটক করে ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে ১৫ দিন করে বিনাশ্রম কারাদন্ড দেওয়া হয়। 
জেলার টঙ্গিবাড়ী উপজেলায় অভিযান চালিয়ে অবৈধভাবে ইলিশ মাছ ধরার অপরাধে দু’জনকে আটক করে ছয় হাজার টাকা করে জরিমানা করা হয়। টঙ্গিবাড়ী থেকে ১৬০ কেজি ইলিশ মাছ জব্দ করা হয়েছে। 

এদিকে, গজারিয়া উপজেলা থেকে আটক করা হয় আরো দু’জনকে। পরে ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে ছয় হাজার টাকা করে জরিমানা করা হয়। গজারিয়া থেকে ৩৫ কেজি ইলিশ ও ২২ হাজার মিটার জাল জব্দ করা হয়। 

শ্রীনগর উপজেলায় অভিযান চালিয়ে চার হাজার মিটার জাল ও ১৫ কেজি ইলিশ জব্দ করা হয় এবং লৌহজং উপজেলা থেকে ২০০ কেজি মা ইলিশ ও ৫০ হাজার মিটার জাল জব্দ করা হয়েছে।
অন্যান্য দিনের মতো আজকের জব্দ করা মাছও স্থানীয় মাদ্রাসা ও এতিমখানায় বিতরণ করা হয়েছে। আর নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটের নির্দেশনায় এলাকাবাসীর উপস্থিতিতে জব্দকৃত জাল পুড়িয়ে নষ্ট করা হয়। নিয়মিতভাবে অভিযান চালানো হবে বলে জানান জেলার এ মৎস্য কর্মকর্তা।