Opu Hasnat

আজ ২০ অক্টোবর শনিবার ২০১৮,

পাইকগাছায় নববধুর ঝুলন্ত মৃতদেহ উদ্ধার, পরিবারের অভিযোগ হত্যা! নারী ও শিশুখুলনা

পাইকগাছায় নববধুর ঝুলন্ত মৃতদেহ উদ্ধার, পরিবারের অভিযোগ হত্যা!

পাইকগাছায় মেহেদীর রং শুকাতে না শুকাতেই বিয়ের ২ মাসের মধ্যে বিএল কলেজে অনার্স পড়ুয়া সোনালী বিশ্বাসের গলায় ওড়নায় ঝুলানো লাশ উদ্ধার হয়েছে। মঙ্গলবার সকাল ১১টার দিকে উপজেলার বোয়ালিয়া ব্রীজ সংলগ্ন মালোপাড়ায় এ ঘটনাটি ঘটেছে। সোনালী ডুমুরিয়ার আইতলা গ্রামের নিতাই বিশ্বাসের মেয়ে। সে বিএল কলেজে পড়া অবস্থায় একই কলেজে পড়ুয়া পাইকগাছার বোয়ালিয়া গ্রামের বাবুলাল বিশ্বাসের ছেলে রবীন বিশ্বাসের সাথে প্রেমে জড়িয়ে পড়ে। গত ২ মাস পুর্বে তাদের ধর্মীয় মতে আনুষ্ঠানিক ভাবে বিয়ে হয়। 

পরিবারের লোকজন বলছে মঙ্গলবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে স্বামীর ঘরে সোনালীর গলায় ওড়না পেচানো অবস্থায় মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়। তাকে দুপুরে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে আনলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত্যু ঘোষণা করে। সংবাদ পেয়ে থানা পুলিশের এসআই অখিল রায় হাসপাতালে যেয়ে মৃতের সুরত হাল রিপোর্ট শেষে জানিয়েছেন, মৃতের গলায় অর্ধাচন্দ্রাকারের কালো দাগ, মাথা ফোলা ও শরীরের বিভিন্ন স্থানে ছোট-খাটো আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে। এ ঘটনায় সোনালীর স্বামী রবিন ও শ্বশুর বাবুলাল কে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদের জন্য থানা হেফাজতে নিয়ে ৫৪ ধারায় গ্রেপ্তার দেখিয়েছে। 

অন্যদিকে, একমাত্র মেয়ে হারিয়ে সোনালীর বাবা নিতাই বিশ্বাস ও নিকট আত্মীয়রা অভিযোগ করেছেন, তার মেয়ের উপর শারীরিক ও মানসিক নির্যাতন করে পরিকল্পিতভাবে হত্যা করা হয়েছে। মৃতের পরিবারের অভিযোগ, গদাইপুরের সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান কাজী আব্দুস সালাম বাচ্চু দিনভোর হাসপাতাল, থানা পুলিশ ও মৃতের স্বজনদের সাথে যোগাযোগ রক্ষা করে পরিস্থিতি সামাল দেয়ার চেষ্টা করছেন। পুলিশ সুরত হাল রিপোর্ট শেষে ময়না তদন্তের জন্য খুমেক হাসপাতালে পাঠিয়েছেন। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত মৃতের পরিবারের পক্ষ থেকে থানায় অভিযোগের প্রস্তুতি চলছিল।