Opu Hasnat

আজ ২৫ জুন সোমবার ২০১৮,

ব্রেকিং নিউজ

ইউনিয়ন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কেন্দ্রে স্বাভাবিক প্রসব সেবা জোরদারকরণ বিষয়ে কর্মশালা স্বাস্থ্যসেবাসুনামগঞ্জ

ইউনিয়ন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কেন্দ্রে স্বাভাবিক প্রসব সেবা জোরদারকরণ বিষয়ে কর্মশালা

ইউনিয়ন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কেন্দ্র ২৪/৭ স্বাভাবিক প্রসব সেবা জোরদারকরণ বিষয়ক দিনব্যাপী কর্মশালা অনুষ্ঠিত হয়েছে। 

শনিবার নকাল ১০টায় পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তর ঢাকার আয়োজনে ও  পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তর সুনামগঞ্জের ব্যবস্থাপনায় শহরের শিল্পকলা একাডেমির হাছন রাজা অডিটরিয়ামে এ কর্মশালা অনুষ্ঠিত হয়। জেলা স্থানীয় সরকার বিভাগের উপ পরিচালক মোহাম্মদ এরমান হোসেনের সভাপতিত্বে কর্মশালায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে রাখেন, পরিবার পরিকল্পনা বিভাগ সিলেটের (যুগ্ম সচিব) পরিচালক মোঃ কুতুব উদ্দিন। 

কর্মশালায় বিশেষ অতিথির বক্তব্যে রাখেন, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক মোঃ নুরুজ্জামান, জেলা সিভিল সার্জন ডাঃ আশুতোষ দাস, সাবেক সিভিল সার্জন ও বর্তমান বিএমইএর সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা ডাঃ আব্দুল হাকিম, সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার প্রদীপ সিংহ, জেলা পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তর সুনামগঞ্জের উপ পরিচালক ডাঃ মোজাম্মেল হক, সহকারী উপ-পরিচালক ডাঃ ননী গোপাল তালুকদার, পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তর ঢাকার গ্রোপ্রাম অফিসার ডাঃ সামছুদ্দিন, উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান নিগার সুলতানা কেয়া। 

এছাড়াও বক্তব্যে রাখেন জাহাঙ্গীর নগর ইউপি চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা মকসুদ আলী, লক্ষণশ্রী ইউপি চেয়ারম্যান মোঃ আব্দুল ওদুদ, কুরবান নগর ইউপি চেয়ারম্যান মোঃ আবুল বরকত ও গৌরারং ইউপি চেয়ারম্যান মোঃ ফুল মিয়া প্রমুখ। 

প্রধান অতিথি পরিবার পরিকল্পনা সিলেট বিভাগের যুগ্ম সচিব মোঃ কুতুব উদ্দিন বলেন, গর্ভবর্তী মা, নবজাতক, কৈশোরদের প্রজনন স্বাস্থ্যসেবা সঠিকভাবে প্রদান এবং পুষ্টি সক্রান্ত কর্মসূচী পরিবার পরিকল্পনরা অধিদপ্তরাধীন কর্তৃক বাস্তবায়ন করা জরুরী। তিনি বলেন মাতৃমৃত্যু ও শিশু মৃত্যুর হার কিভাবে কমিয়ে আনা যায় সেজন্য বিভিন্ন ইউনিয়নের স্থানীয় জনপ্রতিনিধি চেয়ারম্যান মেম্বারগনের পাশাপাশি প্রশাসনের কর্মকর্তা ও ডাক্তারদের সমন্বিত প্রচেষ্ঠায় স্বদিচ্ছা থাকলেই কেবল এগুলো থেকে উত্তরণ ঘটানো সম্ভব। তিনি বলেন বর্তমানে সাড়ে ১ কোটি জনসংখ্যার এই ছোট দেশে যদি মায়েরা জন্মনিবন্ধন পদ্ধতি অনুসরণ না করেন তাহলে ভবিষ্যৎ এ বিশ্বে বাংলাদেশ উন্নত ও সমৃদ্ধ দেশের প্রধান অন্তরায় হয়ে দাড়াঁবে জনসংখ্যা। তাই এই বাংলাদেশে মিলিনিয়াম ডেভেলপমেন্ট গোল্ড অর্জন ও টেকসই উন্নয়নে বর্তমান সরকার নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছে বলে ও তিন অভিমত ব্যক্ত করেন।