Opu Hasnat

আজ ১৭ নভেম্বর শনিবার ২০১৮,

খুলনার মেয়র নৌকার তালুকদার আবদুল খালেক খুলনা

খুলনার মেয়র নৌকার তালুকদার আবদুল খালেক

খুলনা সিটি করপোরেশন নির্বাচনে খুলনায় বেসরকারিভাবে মেয়র নির্বাচিত হয়েছেন আওয়ামীলীগ মনোনীত ও ১৪ দল সমর্থিত তালুকদার আবদুল খালেক। নির্বাচনে বিএনপি প্রার্থী নজরুল ইসলাম মঞ্জুকে বিপুল ভোটে হারিয়ে জয়ী হয়েছেন আওয়ামী লীগ প্রার্থী তালুকদার আবদুল খালেক। 

খুলনায় মোট ২৮৯টি ভোটকেন্দ্রের মধ্যে অনিয়মের অভিযোগে ৩টি কেন্দ্রের ভোট স্থগিত করা হয়। ফলে ২৮৬টি কেন্দ্র থেকে প্রাপ্ত ফলাফলে তালুকদার আব্দুল খালেক মোট ১ লাখ ৭৬ হাজার ৯২০ ভোট পেয়ে বেসরকারিভাবে মেয়র নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী বিএনপি মনোনীত ও ২০ দলীয় জোট সমর্থিত মেয়র প্রার্থী নজরুল ইসলাম মঞ্জু পেয়েছেন ১ লাখ ৮ হাজার ৯৫৬ ভোট। মঞ্জুর চেয়ে ৬৭ হাজার ৯৬৪ ভোট বেশি পেয়ে বিজয়ী হয়েছেন খালেক। তবে স্থগিত ৩ কেন্দ্রের ফলাফল ঘোষণা করা হয়নি। 

আজ মঙ্গলবার রাতে নগরীর সোনাডাঙ্গা এলাকার বিভাগীয় মহিলা ক্রীড়া কমপ্লেক্সে স্থাপিত নির্বাচনী ফলাফল সংগ্রহ ও ঘোষণা কেন্দ্র থেকে আওয়ামী লীগ প্রার্থী তালুকদার আবদুল খালেককে বেসরকারিভাবে জয়ী ঘোষণা করা হয়।

এছাড়া ৩১টির মধ্যে সাধারণ কাউন্সিলর পদে নির্বাচিত হয়েছেন ১ নম্বর ওয়ার্ডে আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী শেখ আব্দুর রাজ্জাক, ২নং ওয়ার্ডে মো: সাইফুল ইসলাম (বিএনপি), ৩ নম্বর ওয়ার্ডে শেখ আব্দুস সালাম (আওয়ামী লীগ), ৭ নম্বর ওয়ার্ডে সুলতান মাহমুদ পিন্টু ( বিএনপি), ৮ নম্বর ওয়ার্ডে ডালিম হাওলাদার (বিএনপি), ৯ নম্বর ওয়ার্ডে আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী এম মাহফুজুর রহমান লিটন, ১০ নম্বর ওয়ার্ডে আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী কাজী তালাত হোসেন কাউট, ১১ নম্বর ওয়ার্ডে আওয়ামী লীগের মুক্তিযোদ্ধা মুন্সী আব্দুল ওয়াদুদ, ১২ নম্বর ওয়ার্ডে বিএনপির মনিরুজ্জামান মনি, ১৩ নম্বর ওয়ার্ডে আওয়ামী লীগের এস এম খুরশিদ আহম্মেদ টোনা, ১৪ নম্বর ওয়ার্ডে আওয়ামী লীগের শেখ মোশাররফ হোসেন, ১৬ নম্বর ওয়ার্ডে আনিসুর রহমান বিশ্বাস (বিএনপি বিদ্রোহী), ২১ নম্বর ওয়ার্ডে মো: শামসুজ্জামান মিয়া স্বপন (আওয়ামী লীগ) , ২২ নম্বর ওয়ার্ডে হাসান ইমাম চৌধুরী ময়না (স্বতন্ত্র), ২৪ নম্বর ওয়ার্ডে মো: শমশের আলী মিন্টু (বিএনপি), ২৫ নম্বর ওয়ার্ডে মো: আলী আকবর টিপু, ২৭ নম্বর ওয়ার্ডে জেড এ মাহমুদ ডন (আওয়ামী লীগ)।

এদিকে মঙ্গলবার রাতে বেসরকারি ফলাফল ঘোষণার পর প্রধান প্রতিপক্ষ বিএনপির প্রার্থী নজরুল ইসলাম মঞ্জুকে সঙ্গে নিয়েই খুলনার উন্নয়নে কাজ করার কথা জানিয়ে বিজয়ী প্রার্থী তালুকদার আব্দুল খালেক সাংবাদিকদের বলেন, ‘আমি যখন খুলনার মেয়র ছিলাম, তখন তিনি (নজরুল ইসলাম মঞ্জু) এমপি ছিলেন। সে আমার আমার ছোট ভাইয়ের মতো। আমরা যখন খুলনা শহরে বিভিন্ন আন্দোলনে মাঠে ছিলাম, সে-ও সেই আন্দোলন-সংগ্রামে ছিল। মাঠ পর্যায়ের একজন নেতা সে- এটা আমি অস্বীকার করি না। কাজেই নির্বাচনে একজন হারবে একজন জিতবে এটা স্বাভাবিক। তবে নগরবাসীর উন্নয়নে আমি তাকে নিয়েই এগিয়ে যেতে চাই। আমাদের একসঙ্গেই চলতে হবে।’